রবিবার রাতে নিখিলের জন্মদিনের দিনই হঠাতই অসুস্থ হয়ে পড়েন নুসরত। তড়িঘড়ি হাসপাতালে তাঁকে ভর্তি করা হয় তাঁকে। সোমবার সকালে তাঁর শারীরিক অবস্থা স্বাভাবিক থাকলেও ডাক্তারের রিপোর্ট নিয়ে বেজায় জলঘোলা হয় নেট দুনিয়ায়। অতিরিক্ত ড্রাগ নেওয়ার ফলেই শ্বাসকষ্ট শুরু হয় নুসরতের। এই খবরেই ছড়ায় চাঞ্চল্যতা। শুরু হয় তাঁকে ঘিরে নয়া জল্পনা। 

 

 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 

back to my responsibilities.. to my extended family in BASIRHAT.. taking stock of law and order situation.

A post shared by Nusrat (@nusratchirps) on Nov 21, 2019 at 5:03am PST

 

হাসপাতাল থেকে ফিরে এসেই সোশ্যাল মিডিয়ায় নুসরত জানিয়ে ছিলেন নিজের স্বাস্থ্যের খবর। আপাতত তিনি ভালোই আছেন, এবং দুদিনের রেস্ট নিতে পাড়লেই পুরোপুরি সুস্থ হয়ে উঠবেন তিনি। এমনটা জানানোর পরই কেটে যায় দুদিন। তারপরই কাজে ফিরলেন নুসরত। সোজা পৌঁছে গেলেন বসিরহাটে। নিজের পরিবার বলে ছবিও ষেয়ার করলেন এদিন সংসদ। সেখান কাজ সেরে সকলের সঙ্গে দেখা করে কলকাতায় ফিরেছিলেন তিনি। 

 

 

এরপরই গোলাপি যুদ্ধে সামিল হল নুসরত জাহান। নিখিলের সঙ্গেই একাধিক ছবি তুলে শেয়ার করেন সোশ্যাল মিডিয়ায়। প্রতিটি ফ্রেমেই ছিলেন কখনও কপিল দেব কখনও আবার সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়। সেই ছবি দেখা মাত্রই বেজায় খুশি তাঁর ভক্তরা। কমেন্ট বক্সে সবাই নুসরতকে সুস্থ দেখে বেজায় খুশি হলেন। জানালেন নিজেদের মতামত।