ছবির দুনিয়ার সঙ্গে অতপ্রতভাবে জড়িয়ে রয়েছে পর্যটন শিল্প। কীভাবে তা এবার খোলসা করে বললেন সলমন খান। মধ্যপ্রদেশে সম্প্রতি শ্যুট করা হয়েছিল দাবাং থ্রি ছবি। কিন্তু সেই ছবি বক্স অফিসে সেভাবে প্রভাব ফেলেনি। তবে ছবি যদি বক্স অফিসে না চলে তাহলেও তা সেই জায়গার পর্যটনকে প্রচার করে থাকে। সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে মধ্যপ্রদেশ পর্যটন নিয়ে এবার মুখ খুললেন সলমন খান।

আরও পড়ুনঃ ঐশ্বর্যর আগে একাধিক নারীসঙ্গ, দেখে নিন জুনিয়র বচ্চনের দীর্ঘ তালিকা
সলমন খানের কথায়, ছবির মাধ্যমে পর্যটনের দুটি দিক রয়েছে। প্রথমত, ছবিটি শ্যুটিং-এর জন্য যখন একটা জায়গা স্থির করা হয়, তখন সেখানে কম পক্ষে ৩০০ থেকে ৩৫০ জন কাস্ট মেম্বাররা যায়। সেখানের হোটেল, খাবার, পরিবেশ খুব কাছ থেকে দেখার সুযোগ পায়। সেখানকার পেট্রোল ডিজেল জল প্রভৃতি ব্যবহার করে থাকেন তারা। পর্যটনের অন্যদিকটিও তুলে ধরতে ভোলেননি সলমন খান। 

এদিন সলমন খান স্পষ্টই বোঝালেন, ছবি ফ্লপ হলেও তা ওয়েব, ডিজিটাল, স্যাটেলাইটের দ্বারা মানুষের ড্রইংরুমে পৌঁছে যায়। সেখানেই ছবির দৃশ্য দেখে দর্শকেরা বুঝতে পেরে যায় যে জায়গাটা কোথায়। ফলে এটাও একটা পর্যটনের অঙ্গ। ডিসেম্বরেই মুক্তি পেয়েছিল ডাবাং থ্রি ছবিটি। সেই ছবি বক্স অফিসে সারা না ফেললেও তা যে মধ্যপ্রদেশকে সয়কলের সামনে তুলে ধরতে সক্ষম হয়েছে, তা আর বলার অপেক্ষা রাখে না।