লকডাউনে মাঠে বসে খেলা দেখলেন ওসামা বিন লাদেন। কী অবাক হলেন? অবাক হওয়ারই তো কথা। আমেরিকার ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টারের আত্মঘাতী হামলার মূল চক্রী লাদেন পাকিস্তানের অ্যাবোটাবাদে নিহত হন। আমেরিকার নৌ বাহিনীর বিশেষ প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত দল হানা দিয়ে তাকে নিকেশ করেছিল। তাহলে সে আবার মাঠে বসে ফুচবল দেখল কী করে? সেই প্রশ্নই মনে ঘুরপাক খাচ্ছে। তাই তো। এমনই দুঃসাধ্য কাজ করেছে ফুটবল ক্লাব লিডস ইউনাইটেড  যা নিয়ে তৈরি হয়েছে  নয়া বিতর্ক। তবে ঘাবড়াবার কিছু নেই, এই বিতর্ক লাদেনের কার্ডবোর্ড ফেস নিয়ে।

আরও পড়ুনঃচশমা পড়া মহিলার সঙ্গে ডেটিং করতে চান সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়, আপনার কাকে পছন্দ,তালিকায় রয়েছেন অনেকেই

করোনার প্রকোপ কিছুটা কমতেই ইউরোপ সহ বিশ্বের একাধিক শুরু হয়েছে ফুটবল। ফুটবলের পাশপাশি  শুরু হয়েছে অন্যান্য খেলাও। কড়া স্বাস্থ্যবিধি মেনে দর্শকশূন্য স্টেডিয়ামে চলছে খেলা। খালি স্টেডিয়াম ভরাতে ব্যবহার করা হচ্ছে কিন্তু তাই বলে কি আর ফাঁকা গ্যালারি রাখা যায়। তাই গ্যালারি ভরা থাকছে কার্ডবোর্ড ফেস দিয়ে। আর সেই কার্ডবোর্ড ফেস দিয়ে স্টেডিয়াম ভরাতে গিয় নয়া বিতর্ক জড়িয়েছে লিডস ইউনাইটেড ক্লাব। কারণ লিড ইউনাইটেডের একটি ম্য়াচে গ্যালারিতে হাজারো কার্ডবোর্ড ফেসের মধ্যে ছিল ওসামা বিন লাদেনের কার্ড বোর্ড। টিভিতে ম্যাচ দেখার সময় লাদেনের সেই কার্ডবোর্ড ফেস দেখে অবাক হয়েছিলেন ফুটবল সমর্থকরা। কী করে এত বড় ভুল করলেন লিডস ইউনাইটেডের কর্তারা! সেটাই ভেবে পাচ্ছেন না অনেকে। 

আরও পড়ুনঃকেনও রাশিদ খানকে শেষ করে দিতে চেয়েছিলেন ক্রিস গেইল,জানালেন কেএল রাহুল

আরও পড়ুনঃনিজের হাতেই প্যান্ট খুলে মহিলার সঙ্গে নাচ মারাদোনার,নয়া বিতর্কে 'হ্যান্ড অফ গড',দেখুন ভাইরাল ভিডিও

খবর প্রকাশ্যে আসার পরই অস্বস্তিতে পড়ে যান লিডস ইউনাইটেডের কর্মকর্তারা। তারা জানান, প্লেয়ারদের মনোরঞ্জন ও মাঠ ভরানোর জন্য মোট ১৫ হাজার কার্ড বোর্ডের অর্ডার দেওয়া হয়েছিল। তার মধ্যে কী করে যে লাদেনের ছবি ঢুকে পড়েছে সেটা তারা জানেন না। বিতর্ক দানা বাধলেও, ঘটনার জন্য নিঃশ্বর্ত ক্ষমা চেয়ে নিয়েছেন ক্লাব কর্তৃপক্ষ। ভবিষ্যতে এমন ভুল না হওয়ারও আশ্বাস দিয়েছেন তারা। কিন্তু ক্ষমা চাওয়ার পরেও, ক্লাব কর্তৃপক্ষের ভূমিকা ও সচেতনতার অভাব নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন অনেকেই।