ফুটবল ভক্তদের জন্য এলো দুঃসংবাদ। পিছিয়ে যেতে চলেছে ইউরো কাপ ২০২০। মঙ্গলবার ইউরোপিয়ান গভর্নিং বডির তরফ থেকে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। জানানো হয়েছে পরের বছর আয়োজিত হবে টুর্নামেন্টটি। সারা পৃথিবী জুড়ে করোনা ভাইরাসের সংক্রমণের জেরে কার্যত বিশ্বজোড়া অচলাবস্থার সৃষ্টি হয়েছে। টুর্নামেন্টটি যে সময় হওয়ার কথা ছিল তখন ভাইরাসের প্রকোপ কমবে কিনা বা তার মধ্যে আপাতত স্থগিত থাকা ক্লাব ফুটবল প্রতিযোগিতাগুলি শেষ করা যাবে কিনা সেই নিয়েও থেকে যাচ্ছিল সন্দেহ। তাই সবদিক ভেবে চিন্তে এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে ইউয়েফা।

২৪ টি দল নিয়ে আয়োজিত হতে চলা এই টুর্নামেন্টটি ১২ টি আলাদা আলাদা দেশে আয়োজিত হওয়ার কথা ছিল। এই বছরের জুন মাসের ১২ তারিখ থেকে জুলাই মাসের ১২ তারিখ অবধি হওয়ার কথা ছিল টুর্নামেন্টটি। ইউয়েফা জানিয়েছে সেই সময়ের বদলে পরের বছরের জুন মাসের ১১ তারিখ টুর্নামেন্টটি শুরু হবে এবং টুর্নামেন্টটি শেষ হবে জুলাই মাসের ১১ তারিখে। ইউয়েফা তাদের অধীনে থাকা সমস্ত পুরুষ এবং মহিলা ক্লাব প্রতিযোগিতাও আপাতত বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিচ্ছে। ফুটবল ইতিহাসে প্রথমবারের জন্য প্রতিযোগিতাটির চূড়ান্ত পর্বটি স্থগিত রাখা হচ্ছে। 

ইউয়েফার সাথে সাথে কনমবল থেকেও জানানো হয়েছে যে তাদের পক্ষে এই বছরের ১২ই জুন থেকে ১২ই জুলাই পর্যন্ত কোপা আমেরিকা আয়োজন করা বর্তমান পরিস্থিতিতে কার্যত অসম্ভব। তার বদলে তারাও ২০২১ সালের জুন এবং জুলাইয়ে কোপা আমেরিকা আয়োজন করতে চাইছে। সাউথ আমেরিকার এই সিদ্ধান্ত থেকে পরিস্কার যে এই বছর ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোর সাথে সাথে লিওনেল মেসি-কেও দেশের জার্সি পরে বড় কোনও টুর্নামেন্টে দেখতে পাচ্ছেন না ফুটবলভক্তরা।