চলতি মাসের প্রথম সপ্তাহে প্যারাগুয়ের জেল থেকে ছাড়া পেয়েছেন ব্রাজিলিয়ান কিংবদন্তি রোনালডিনহো। ভুয়ো পাসপোর্ট নিয়ে প্যারাগুয়েতে প্রবেশের চেষ্টা করলে সেদেশের পুলিশ তাকে এবং তার ভাইকে গ্রেপ্তার করে। সেই নিয়ে এতদিন প্রকাশ্যে কোনও মন্তব্য করেননি প্রাক্তন বার্সা তারকা। কিন্তু সম্প্রতি বিষয়টি নিয়ে মৌনতা ভঙ্গ করেছেন তিনি। তিনি জানিয়েছেন যে তার পাসপোর্টটি যে ভুয়ো ছিল সেই সম্পর্কে কোনও ধারণাই ছিল না তার। তিনি যখন ব্যাপারটি জানতে পারেন তখন আশ্চর্য হয়ে যান। 

আরও পড়ুনঃমহামারীর পর 'ফুটসল' দিয়ে ভারতে ফিরতে চলেছে ফুটবল

ফিফার বিচারে দু-বার বিশ্বের সেরা ফুটবলারের তকমা পাওয়া বছর ৪০-এর প্রাক্তন ফুটবলার জেল থেকে জামিন পেয়েছেন এপ্রিল মাসের ৭ তারিখে। জামিন হিসাবে তাকে জমা দিতে হয়েছে ১.৬ মিলিয়ন ডলার। রোনালডিনহো সম্প্রতি একটি সাক্ষাৎকারে জানিয়েছেন তিনি এবং তার ভাই চেষ্টা করছেন যত দ্রুত সম্ভব তত দ্রুত এই পরিস্থিতি থেকে বেরিয়ে আসার। এর জন্য যাদের সঙ্গে প্রয়োজন তাদের সঙ্গে দেখা করেছেন তারা। 

আরও পড়ুনঃপরিস্থিতি স্বাভাবিক না হলে বাতিল হতে পারে অলিম্পিক,আশঙ্কা প্রকাশ অলিম্পিক কমিটির প্রেসিডেন্টের

আরও পড়ুনঃভারতে খেলতে আসা স্প্যানিশ ফুটবলারদের দেশে ফেরানোর উদ্যোগ,৫ মে বিশেষ বিমান

প্রাক্তন গ্রেমিও, প্যারিস সঁ জা এবং এসি মিলানের হয়ে ফুটবল খেলা ফুটবলার কে প্যারাগুয়ের জেলে কয়েদিদের সঙ্গে ফুটবল খেলতেও দেখা গেছে। ফুটবল পায়ে বরাবরের মতোই স্বচ্ছন্দ্য দেখিয়েছে তাকে। তিনি জানিয়েছেন যে সারা জীবন তিনি যতটা সম্ভব পেশাদারিত্ব দেখানোর চেষ্টা করেছেন এবং নিজের ফুটবলের মধ্যে দিয়ে লোকেদের আনন্দ দেওয়ার চেষ্টা করেছেন। এই ঘটনাটি তার কাছে এক বিশাল ধাক্কা বলে উল্লেখ করেছেন তিনি।