ফের ককোনার থাবা ফুটবল বিশ্বে। কোভিড ১৯ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃত্য হল ইংল্যান্ডের বিশ্বকাপ জয়ী ফুটবলার নর্ম্যান হান্টারের। মৃত্যুকালে বয়স হয়েছিল ৭৬ বছর। তাঁর ক্লাব লিডস ইউনাইটেডের তরফ থেকে এক বিবৃতি প্রকাশ করে জানানো হয়, ‘কোভিড ১৯-এ  সংক্রমিত হওয়ার পরে নর্ম্যানকে গত সপ্তাহে হাসপাতালে ভর্তি করতে হয়। এনএইচএস-এর কর্মীরা প্রাণপাত করলেও শেষরক্ষা করা গেল না। অবশেষে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি।’ 

আরও পড়ুনঃতরুণ প্রতিভাদের উৎসাহ দানে ধোনি ও সৌরভের অধিনায়কত্বে অনেক মিল রয়ছে, মনে করেন জাহির খান

ইংল্যান্ড ও লিডস ইউনাইটেডের প্রাক্তন ডিফেন্ডার নর্ম্যান হান্টার। ফুটবল জীবনে অনেক কৃতিত্বের অধিকারী তিনি। ১৯৬৬ সালে বিশ্বকাপ জয়ী ইংল্যান্ড দলের সদস্য ছিলেন তিনি।  রক্ষণে অতন্দ্র প্রহরী ছিলেন হান্টার।  ট্যাকলিংয়ের জন্য ছিলেন বিখ্যাত। ১৯৭৪ বিশ্বকাপ ফুটবলেও খেলেছেন ইংল্যান্ডের জার্সি পরে। ১৯৭৩ সালে ইউরো কাপ জেতা ইংল্যান্ড টিমেরও সফল ফুটবলার ছিলেন হান্টার। ১৭ বছর টানা খেলেছিলেন লিডস ইউনাইটেড ক্লাবের হয়ে। তিনি থাকাকালীনই ইংলিশ ফুটবল লিগে  দুবার শিরোপা জিতেছে লিডস ইউনাইটেড। খেলা ছাড়ার পর টিভিতে বিশেষজ্ঞ হিসেবে কাজ করেছেন হান্টার।

আরও পড়ুনঃআত্মবিশ্বাস ফিরলেই ভয়ংকর হয়ে উঠবেন পন্থ, মনে করছেন সামি

আরও পড়ুনঃবিরাট কোহলিকে আউট করার উপায় বললেন শোয়েব আখতার

সম্প্রতি বার্ধক্যজনিত অসুস্থতায় ভুগছিলেন ৭৬ বছরের এই প্রাক্তন ফুটবলার। লিডসই সোশ্যাল মিডিয়ায় হান্টারের করোনা আক্রান্ত হওয়ার খবর প্রকাশ্যে আনে। ক্লাবের তরফে জানানো হয়েছে,বেশ কয়েক দিন ধরেই অসুস্থ থাকায় হান্টারকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল। সেখানেই তাঁর করোনা পজিটিভ ধরা পড়ে। সপ্তাহ খানেক হাসপাতালে ভর্তি ছিলেন হান্টার। ধীরে ধীরে তার অবস্থার অবনতি হয়। চিকিৎসকরা যতটা সম্ভব চেষ্টা করেও শেষ রক্ষা করতে পারলেন না ব্রিটিশ ফুটবলের অন্যতম কিংবদন্তীকে। লিডসের পক্ষ থেকে শোকজ্ঞাপন করে আরও বলা হয়েছে,‘লিডস ইউনাইটেড পরিবারের জন্য উনি রেখে গেলেন এক মহান ঐতিহ্য। যা কোনও দিন মুছে ফেলা যাবে না। শোকস্তব্ধ নর্ম্যানের পরিবার ও বন্ধুদের সমবেদনা জানানোর ভাষা সত্যিই আমাদের জানা নেই।’ যোগ করা হয়েছে, ‘ওঁর মৃত্যু লিডস পরিবারে গভীর শূন্যতা সৃষ্টি করল।’ হান্টারের মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়তেই শোকের ছায়া ফুটবল বিশ্বে। একইসঙ্গে ফুটবল তথা ক্রিড়া বিশ্বে যেভাবে করোনা কোপ বাড়ছে তাতে আতঙ্কিত সকলেই।