চলতি বছরে করোনা সংক্রমণের আতঙ্কে পিছিয়ে দেওয়া হয়েছে একের পর এক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা। ল্যাটিন আমেরিকার সবচেয়ে বড় ফুটবল প্রতিযোগিতা কোপা আমেরিকাও এই তালিকা থেকে বাদ যায়নি। চলতি বছরের জুন মাসে থেকে কোপা আমেরিকা শুরু হওয়ার কথা থাকলেও, করোনা সংকটে কারণে তা আগামী বছরে অনুষ্ঠিত করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছিল আগেই।

আরও পড়ুনঃচ্যাম্পিয়ন্স লিগে অঘটন, লেপজিগের কাছে হেরে বিদায় অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদের

আগামী বছরের কোপা আমেরিকা দু'টি দেশ মিলিত উদ্যোগে আয়োজন করবে। এই দুটি দেশ হলো কলম্বিয়া এবং আর্জেন্টিনা। কোপা আমেরিকার ইতিহাসে প্রথম বার এই ঘটনা ঘটতে চলেছে। মোট ১২টি দল অংশ নেবে আগামী বছরের কোপা আমেরিকায়। ১০ টি ল্যাটিন আমেরিকান দেশের সাথে টুর্নামেন্টে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে অস্ট্রেলিয়া এবং এশিয়ান চ্যাম্পিয়ন কাতারকে। তবে এতদিন অজানা ছিল যে আগামী বছরে কোন সময়ে অনুষ্ঠিত হবে কোপা আমেরিকা? এবার সেই সন্দেহের অবকাশ ঘটিয়ে কোপা আমেরিকার পূর্ণাঙ্গ সূচি প্রকাশ করলো সাউথ আমেরিকান সকার কনফেডারেশন। 

আরও পড়ুনঃযাবতীয় জল্পনার অবসান ঘটিয়ে চেলসি থেকে আর্সেনালে যোগ দিলেন ব্রাজিলিয়ান উইঙ্গার

২০২১ সালের ১১ জুন শুরু হবে কোপা আমেরিকা এবং শেষ হবে ১০ জুলাই। উদ্বোধনী ম্যাচ এবং ফাইনাল ম্যাচ আলাদা দেশে আয়োজনের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। ১১ জুন আর্জেন্টিনার রাজধানী বুয়েন্স এইরসে উদ্বোধনী ম্যাচে চিলির মুখোমুখি হবে আর্জেন্টিনা। উদ্বোধনী ম্যাচটি আর্জেন্টিনাতেই আয়োজনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে কর্তৃপক্ষ। অন্য দিকে, কোপা আমেরিকার ফাইনাল ম্যাচটি  আয়োজিত হবে কলম্বিয়ার ব্যারানকুইলায়।

আরও পড়ুনঃবার্সেলোনায় একসঙ্গে খেলতে পারেন মেসি-রোনাল্ডো, ক্রীড়া সাংবাদিকের দাবি ঘিরে চাঞ্চল্য ফুটবল দুনিয়ায়

প্রাথমিক ভাবে গ্রুপ পর্বের ম্যাচের ফলাফলের ভিত্তিতে, প্রতি গ্রুপ থেকে চারটি করে দল মুখোমুখি হবে কোয়ার্টার ফাইনালে। মোট ১২ টি দলকে দুটি গ্রূপে ভাগ করা হয়েছে। প্রথম গ্রূপে থাকছে আর্জেন্টিনা, অস্ট্রেলিয়া, বলিভিয়া, উরুগুয়ে, চিলি এবং প্যারাগুয়ে। দ্বিতীয় গ্রূপে আয়োজক দল কলম্বিয়ার সাথে থাকছে ব্রাজিল, কাতার, ভেনেজুয়েলা, ইকুয়েডর এবং পেরু। কোয়ার্টার ফাইনাল থেকে চার বিজয়ী দল মুখোমুখি হবে সেমিফাইনালে। শেষে যোগ্য দুই দলকে নিয়ে আয়োজিত হবে কোপা আমেরিকার ফাইনাল।