অযোধ্যায় রাম মন্দিরের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন হতেই রেগে আগুন পাকিস্তান, মোদীর বিরুদ্ধে শুরু বিষাদগার

First Published 6, Aug 2020, 2:36 PM

অযোধ্যায় রাম মন্দিরের শিলন্যাস নিয়ে রেগে আগুন পাকিস্তান । আন্তর্জাতিক মঞ্চে কাশ্মীর ইস্যু তুলে ধরা পাকিস্তান এখন রাম মন্দির ইস্যুতে ভারতকে আক্রমণ করা শুরু করেছে। ইমরান খান সরকারের রেল মন্ত্রী শেখ রশিদ  মোদী সরকারের সমালোচনা শুরু করেছেন।  মোদী সরকারকে সাম্প্রদায়িক সরকার বলে আখ্যা দিয়েছেন তিনি। রশিদ একটি বয়ানে বলেন, ‘ভারত এখন রাম নগর হয়ে গেছে। সেখানে ধর্মনিরপেক্ষ বলে আর কিছু নেই।' 

<p><strong>বুধবার ৫ আগস্ট অযোধ্যায় বহু প্রতিক্ষিত রাম মন্দিরের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন করেছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। আর তাতেই তেলে বেগুনে জ্বলে উঠেছে ইসলামাবাদ।</strong></p>

বুধবার ৫ আগস্ট অযোধ্যায় বহু প্রতিক্ষিত রাম মন্দিরের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন করেছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। আর তাতেই তেলে বেগুনে জ্বলে উঠেছে ইসলামাবাদ।

<p><strong>পাকিস্তানের মন্ত্রী শেখ রশিদ জানিয়েছেন, ভারত আর ধর্মনিরপেক্ষ দেশ নেই। রামমন্দিরের প্রতিষ্ঠার সঙ্গে সঙ্গেই ভারত এখন 'রামনগর' হিসাবে রূপান্তরিত হয়েছে।তিনি জানান, দুনিয়াতে আর নিরপেক্ষ দেশ বলে কিছু নেই। এখন ভারত শ্রীরামের হিন্দুত্বের দেশ হয়ে গিয়েছে।<br />
&nbsp;</strong></p>

পাকিস্তানের মন্ত্রী শেখ রশিদ জানিয়েছেন, ভারত আর ধর্মনিরপেক্ষ দেশ নেই। রামমন্দিরের প্রতিষ্ঠার সঙ্গে সঙ্গেই ভারত এখন 'রামনগর' হিসাবে রূপান্তরিত হয়েছে।তিনি জানান, দুনিয়াতে আর নিরপেক্ষ দেশ বলে কিছু নেই। এখন ভারত শ্রীরামের হিন্দুত্বের দেশ হয়ে গিয়েছে।
 

<p><strong>তবে ইমরান মন্ত্রিসভার সদস্য শেখ রশিদ ও বিতর্ক যেন ছায়াসঙ্গী। &nbsp;ঠিক &nbsp;একবছর আগে কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা ভারত যখন তুলে নেয় , তখন ভারতে পরমাণু হামলার ডাক দিয়েছিলেন রশিহ। এরপর ভারতের ঘন্টাধ্বনি স্তব্ধ করে দেওয়ার হুমকি দেন এই পাক মন্ত্রী।&nbsp;</strong></p>

তবে ইমরান মন্ত্রিসভার সদস্য শেখ রশিদ ও বিতর্ক যেন ছায়াসঙ্গী।  ঠিক  একবছর আগে কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা ভারত যখন তুলে নেয় , তখন ভারতে পরমাণু হামলার ডাক দিয়েছিলেন রশিহ। এরপর ভারতের ঘন্টাধ্বনি স্তব্ধ করে দেওয়ার হুমকি দেন এই পাক মন্ত্রী। 

<p><strong>পাকিস্তানের বিতর্কিত মন্ত্রী শেখ রশিদ এর আগে একবার মোদীর নাম নিয়ে তাঁর সমালোচনা করতে গিয়ে , হাতে মাইক তোলেন, আর তখনই বিদ্যুতের প্রবল 'শক' খেয়েছিলেন। সেই নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় তাঁকে নিয়ে প্রবল মজা করা হয়েছিল।&nbsp;</strong></p>

পাকিস্তানের বিতর্কিত মন্ত্রী শেখ রশিদ এর আগে একবার মোদীর নাম নিয়ে তাঁর সমালোচনা করতে গিয়ে , হাতে মাইক তোলেন, আর তখনই বিদ্যুতের প্রবল 'শক' খেয়েছিলেন। সেই নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় তাঁকে নিয়ে প্রবল মজা করা হয়েছিল। 

<p><strong>&nbsp;রশিদের দাবি, ৫ অগাস্টকে অযোধ্যার ভূমি পুজোর দিন হিসাবে জেনে বুঝেই ঠিক করেছিল মোদী সরকার।</strong></p>

 রশিদের দাবি, ৫ অগাস্টকে অযোধ্যার ভূমি পুজোর দিন হিসাবে জেনে বুঝেই ঠিক করেছিল মোদী সরকার।

<p style="text-align: justify;"><strong>এদিকে নিজের দেশেই মন্দির তৈরি রুখে দিয়েছেন ইমরান। পাকিস্তানের রাজধানী ইসলামাবাদে হিন্দুদের উপাসনার জন্য মন্দির তৈরির ঘোষণা করা হয়েছিল গত জুন মাসেই। ইসলামাবাদের এইচ-৯ সেক্টরে সেই মন্দিরের জন্য বরাদ্দ এলাকায় একটি অনুষ্ঠান করে কাজও শুরু হয়ে যায়। তবে সেই মন্দির তৈরি করার পথে বাধা হয়ে দাঁড়ায় ইমরান খানের সরকার।</strong></p>

এদিকে নিজের দেশেই মন্দির তৈরি রুখে দিয়েছেন ইমরান। পাকিস্তানের রাজধানী ইসলামাবাদে হিন্দুদের উপাসনার জন্য মন্দির তৈরির ঘোষণা করা হয়েছিল গত জুন মাসেই। ইসলামাবাদের এইচ-৯ সেক্টরে সেই মন্দিরের জন্য বরাদ্দ এলাকায় একটি অনুষ্ঠান করে কাজও শুরু হয়ে যায়। তবে সেই মন্দির তৈরি করার পথে বাধা হয়ে দাঁড়ায় ইমরান খানের সরকার।

<p><strong>&nbsp;মন্দির নির্মাণ শুরু হতেই সেখানে ভাঙচুর চালায় &nbsp;স্থানীয় মৈলবীরা। এদিকে ইমরান খান এই মন্দিরের জন্য ১.৩ মিলিয়ন ডলার বরাদ্দের কথা বলেও পিছিয়ে আসেন।&nbsp;</strong></p>

 মন্দির নির্মাণ শুরু হতেই সেখানে ভাঙচুর চালায়  স্থানীয় মৈলবীরা। এদিকে ইমরান খান এই মন্দিরের জন্য ১.৩ মিলিয়ন ডলার বরাদ্দের কথা বলেও পিছিয়ে আসেন। 

<p><strong>সম্প্রতি লাহোরে একটি শিখ গুরুদ্বার দখলের অভিযোগও উঠেছে। শিখ ধর্মের ভাই তারু সিংজি শহিদ হন বর্তমান পাকিস্তানের লাহোরের নউলাখা বাজারের কাছে একটি এলাকায়। সেই এলাকাতেই গড়ে ওঠে শিখ ধর্মীয় স্থান গুরুদ্বার শাহিদি স্থান। জানা গিয়েছে, পাকিস্তান সেখানে এলাকার নামকরণ করেছে মসজিদ শাহিদগঞ্জ। সেখানেই গুরুদ্বারকে মসজিদে রূপান্তরের চেষ্টা হচ্ছে</strong>।&nbsp;</p>

সম্প্রতি লাহোরে একটি শিখ গুরুদ্বার দখলের অভিযোগও উঠেছে। শিখ ধর্মের ভাই তারু সিংজি শহিদ হন বর্তমান পাকিস্তানের লাহোরের নউলাখা বাজারের কাছে একটি এলাকায়। সেই এলাকাতেই গড়ে ওঠে শিখ ধর্মীয় স্থান গুরুদ্বার শাহিদি স্থান। জানা গিয়েছে, পাকিস্তান সেখানে এলাকার নামকরণ করেছে মসজিদ শাহিদগঞ্জ। সেখানেই গুরুদ্বারকে মসজিদে রূপান্তরের চেষ্টা হচ্ছে। 

loader