মদ্যপান করে তিনি মাতাল অবস্থায় রয়েছেন। সোজা হয়ে দাঁড়াতে পর্যন্ত পারছেন না।  গলা জড়িয়ে যাচ্ছে। কিন্তু মদ্যপানের  ইচ্ছা যে কিছুতেই মিটছে না।  মদের দোকানে গেলেন ওই ব্যক্তি  মদ কিনতে। কিন্তু দোকান থেকেই সাফ ইনকার করে দিয়েছে। এত বড় সাহস। নিজের টাকা দিয়ে মদ কিনবেন, কিন্তু দোকানদার দেবেন না। সোজা ফোন করলেন  পুলিশের জরুরি পরিষেবা ১০০ ডায়ালে। জানিয়ে দিলেন নালিশ। বর্তমানে ওই মদ্যপ ব্যক্তির নালিশই নেট দুনিয়ায় ভাইরাল হয়েছে। মজা লুঠছেন নেটিজেনরা। 

মদ্যপ ব্যক্তির নাম সচিন। তিনি পুলিশের কাছে অভিযোগ করেছেন, টাকা দেওয়ার পরেও তাঁকে মদ দেওয়া হচ্ছে না।  সম্প্রতি পুলিশের কাছে সচিনের নালিশের একটি ভিডিও ভাইরাল হয়ে গিয়েছে।  সেখানে তিনি বিস্তারিতভাবে বিবরণ দিচ্ছেন কেন তাঁকে দোকানদার মদ দিচ্ছেন না।  এরপর পুলিশ ও কৌতুহল জনতা একের পর এক প্রশ্ন করে গিয়েছে। সব প্রশ্নের তিনি ঠিক ঠিক জবাব দিয়েছেন। 

পুলিশ জানতে পেরেছে, মদের দোকানটি সচিনের দাদুর।  কিন্তু সচিন নিজেকে ওই দোকানের মালিক বলে মনে করেন। তাই নিজের দোকানে গিয়ে মদ চান। কিন্তু দাদু তা অস্বীকার করাতেই যত বিপত্তি নেমে আসে। সচিনের পুলিশের কাছে দাবি কী? সচিন পুলিশের কাছে দাবি করেন, তাঁকে যেন দোকান থেকে একটা বোতল মদ এনে দেওয়া হয়। যখন পুলিশের কাছে কথাগুলো বলছিল, সচিনের মুখ থেকে হু হু করে মদের গন্ধ বের হচ্ছিল। এই প্রশ্নের উত্তরে তিনি সাফ জানিয়ে দেন, অন্য  দোকান থেকে তিনি আগেই মদ খেয়ে এসেছেন। কিন্তু বর্তমানে তার আরও মদের প্রয়োজন।