কর্নাটকের কাবিনির জঙ্গলে ঘুরে বেড়ানো একটি ব্ল্যাক প্যান্থার আর লেপার্ডের ছবিই বেশ কয়েক মাস ধরে ভাইরাল হয়েছে নেট দুনিয়ায়। চিরন্তন দম্পতি রীতিমত প্রশংসা কুড়িয়েছে নেটিজেনদের। এই ছবিটি তুলেছেন ৩১ বছরের ওয়াইল্ড লাইফ ফোটোগ্রাফার মিঠুন এইচ। তিনিই জানিয়েছেন দীর্ঘ অপেক্ষার পর তাঁর ক্যামেরার লেন্সে ধরা দিয়েছে ব্ল্যাক পান্থার আর লেপার্ড। 

ফোটোগ্রাফার মিঠুন পশুদুটির নামও জানিছেন। ব্ল্যাক প্যান্থার হল সায়া আর চিতাবাঘ হল ক্লিওপেট্রা, তাঁরা নাকি গত চার বছর ধরেই একসঙ্গে রয়েছে। একটি শীতের সকালেও দম্পতিকে একসঙ্গে পেয়ে ছবি তুলেছেন। 

মিঠুনের কথায় সায়া আর ক্লিওপেট্রা যখন একত্রিত হয় তখন নাকি অন্যরকম হয়ে যায় জঙ্গল। তারা নিজেদের জন্য অল্পসময়ের মধ্যেই একটি কল্পরাজ্য তৈরি করে। তৈরি হয় অন্যএক রূপকথা। মিঠুনের কথায় তিনি দম্পতি থেকে মাত্র ১০০ মিটার দূরে ছিলেন। তখনও ছবি তুলেছেন। দম্পতির মানঅভিমান, চাওয়া পাওয়া সবই সামনে আসে। একটি হরিণ শীকার করেও দম্পতির একসঙ্গে ভোজন সারার দৃশ্যও তিনি দেখেছেন বলে জানিয়েছেন। 

 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 

The Eternal Couple . Saaya and Cleopatra have been courting since 4 years now and whenever they are together it’s a sight to behold. The forest comes alive as they trot nonchalantly in his fabled kingdom. Usually in the courting pairs generally it is the Male who takes charge and moves around with the female following close behind. But with this couple it was definitely Cleo who was in charge while the Panther followed. . This was shot on a surreal winter morning when a single Deer alarm led me to this breathtaking sight. . #kabini #love #leopard #nikon #wild #Natgeo #mithunhphotography #instagood #instadaily #jungle #bigcat #forest #wildlifephotography #nature #wildlife #blackpanther #melanistic #therealblackpanther #thebisonresort

A post shared by Mithun H (@mithunhphotography) on Jul 19, 2020 at 7:52am PDT

মিঠুন জানিয়েছে জঙ্গল সংলগ্ন এলাকায় তাঁর চিরন্তন দম্পতির প্রেমের গল্প বেশ কয়েক বছরের পুরনো। সেই গল্প শুনেই তিনি ছবি তোলার কথা মনস্থ করেন। এই বিষয়ে তাঁকে সাহায্য করেছে ১২ বছর জঙ্গলে ঘোরার অভিজ্ঞতা সম্পন্ন এক গাইডও। তাঁর কথাও সোশ্যাল মিডিয়ায় বলেছেন মিঠুন। তিনি আরও জানিয়েছেন  ৬ দিন অপেক্ষা করার পরই দম্পতির দর্শন পেয়েছেন।