রাজস্থান সংকটে 'ঘি ঢেলে' কংগ্রেসের সভাপতির লড়াই থেকে ছিটকে গেলেন অশোক গেহলট

| Sep 29 2022, 03:51 PM IST

রাজস্থান সংকটে 'ঘি ঢেলে' কংগ্রেসের সভাপতির লড়াই  থেকে ছিটকে গেলেন অশোক গেহলট

সংক্ষিপ্ত

রাজস্থান সংকটের জের, কংগ্রেসের সভাপতি নির্বাচন থেকে ছিটকে গেলেন বর্ষিয়ান কংগ্রেস নেতা অশোক গেহলট। বৃহস্পতিবার দিল্লিতে সনিয়া গান্ধীর সঙ্গে দীর্ঘ বৈঠকের পর তিনি দুটি ঘোষণা করেন। তিনি বলেন রাজস্থানে কংগ্রেস বিধায়কদের বিদ্রোহের জন্য় তিনি সনিয়া গান্ধীর কাছে নৈতিক দায় স্বীকার করে নিয়েছেন।

রাজস্থান সংকটের জের, কংগ্রেসের সভাপতি নির্বাচন থেকে ছিটকে গেলেন বর্ষিয়ান কংগ্রেস নেতা অশোক গেহলট। বৃহস্পতিবার দিল্লিতে সনিয়া গান্ধীর সঙ্গে দীর্ঘ বৈঠকের পর তিনি দুটি ঘোষণা করেন। তিনি বলেন রাজস্থানে কংগ্রেস বিধায়কদের বিদ্রোহের জন্য় তিনি সনিয়া গান্ধীর কাছে নৈতিক দায় স্বীকার করে নিয়েছেন। আর সেই কারণেই তিনি কংগ্রেস সভাপতির পদের লড়াই থেকে দূরে সরে দাঁড়াচ্ছেন। পাশাপাশি রাজস্থান সংকটের জন্য তিনি সনিয়া গান্ধীর কাছে ক্ষমাও চেয়েছেন বলে জানিয়েছেন। 

বৃহস্পতিবার সনিয়া গান্ধীর সঙ্গে দেড় ঘণ্টারও বেশি সময় ধরে আলোচনা করেন অশোক গেহলট। রাজস্থান সংকটের পর এই প্রথম তাঁর দিল্লি আগমণ। কংগ্রেস সভাপতি নির্বাচনের দৌড় থেকে তিনি সরে দাঁড়াচ্ছেন, এই কথা জানিয়ে দেওয়ার পর তিনি পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেওয়ার বিষয়টি দলীয় শীর্ষ নেতৃত্বের ওপর ছেড়ে দেন। শুক্রবার তাঁর মনোনয়ন দাখিল করার কথা ছিল। 

Subscribe to get breaking news alerts

অশোক গেহলটের মনোনয়ন পেশের মাত্র এক দিন আগেই আচকমা কংগ্রেসের সভাপতি নির্বাচনের দৌড়ে সামিল হল দিগ্বিজয় সিং। এদিন দিল্লিতে এসে তিনি মনোনয়নপত্র তোলেন। যদিও তিনি জানিয়েছেন, গান্ধীদের সঙ্গে তাঁর এখনও পর্যন্ত কোনও কথা হয়নি। তিনি নিজের উদ্যোগ নিয়েই এই মনোনয়ন দাখিল করছেন। আগামিকাল মনোনয়ন পেশ করবেন তিনি। 


অন্যদিকে শশী থারুরও শুক্রবার মনোনয়ন দাখিল করার পরিকল্পনা ররছেন। দীর্ঘ ২০ বছর ধরে কংগ্রেসের শীর্ষ পদ রয়েছে গান্ধী পরিবারের অধীনে। যা এর আগে কখনই হয়নি। 

অশোক গেহলট অনুগামী প্রায় ৯০ জন বিধায়ক দল ছাড়ার হুমকি দিয়েছেন। রবিবার তাঁরা রাজ্যের স্পিকার সিপি জোশীর সঙ্গে দেখা করেন। বিধায়কদের দলে ছিলেন ক্যাবিনেট মন্ত্রী শান্তি ধারিওয়াল। প্রথমে তারা শান্তি ধারিওয়ালের বাড়িতে বৈঠক করেন। সেই বৈঠেকেই স্থির হয় অশোক গেহলট যদি কংগ্রেস সভাপতি হন আর শচীন পাইলটকে যদি পরবর্তী মুখ্যমন্ত্রী নির্বাচিত করা হয় তাহলে তারা তাঁকে সমর্থন করবে না। তারা গণইস্তফা দেবে বলেও জানিয়েছে। তারা আরও বলেছে, ২০২০ সালে শচীন পাইলট যখন বিদ্রোহ ঘোষণা করেছিল তখনই ঠিক হয়েছিল ও প্রস্তাব পাশ হয়েছিল পরবর্তী মুখ্যমন্ত্রী গেহলট অনুগামী অর্থাৎ তাদের মধ্যে থেকেই নির্বাচন করা হবে। এখন যদি সেই প্রস্তাবের বিরোধীতা করা হয় তাহলে তারা কংগ্রেসের সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন করতে পারে বলেও হুঁশিয়ারি দিয়েছেন।  ধারিওয়ালের বাড়িতে  সমস্ত পদত্যাগপত্র সংগ্রহ করা হয়েছিল। 
গর্ভপাত করাতে পারবেন বিবাহিত-অবিবাহিত সব মহিলাই, নিরাপদ গর্ভপাত দিবসে বড় রায় সুপ্রিম কোর্টের

কংগ্রেস সভাপতি নির্বাচনের নতুন প্রার্থী দিগ্বিজয় সিং, ত্রিকোন লড়াইয়ের ইঙ্গিত দিল্লিতে

ফুচকা-শেকের ভিডিও ভাইরাল, পুজোর সময় আপনিও বাড়িতে ট্রাই করতে পারেন এই নতুন রেসিপি

null