চেন্নাইয়ের পল্লভরাম সেনা ছাউনিতে ঘটে গিয়েছে ভয়াবহ দুর্ঘটনা। মঙ্গলবার সকালে ওই সেনা শিবিরে একজন ভারতীয় সেনা জওয়ান তাঁর সহকর্মী এক হাবিলদারকে গুলি করে হত্যা করেছে বলে অভিযোগ। তবে  এখানেই শেষ নয়, সহকর্মী হাবিলদারকে খুন করার পর নিজেও আত্মঘাতী হয় বলে অভিযোগ। 

পুলিশের তরফে জানানো হয়েছে, মঙ্গলবার ভোররাত ৩টের সময়ে। জানা গিয়েছে, সোমবার রাতেই রাইফেল ম্যান জয়কুশির এবং হাবিলদার পারভিন কুমারের মধ্যে তুমুল অশান্তি হয় বলে খবর। শুধু তাই নয়, তাঁদের দুজনের মধ্যে আগে থেকেই ব্যক্তিগত শত্রুতা ছিল বলে খবর। তাছাড়া নানা কারণে তাঁদের মধ্যে প্রায়শই বচসা বেঁধে যেত বলে খবর। সেদিনও কোনও এক কারণে তাঁদের মধ্যে কথা কাটাকাটি একটী তীব্র তিক্ততার জায়গায় পৌঁছে যায়। তবুও সেরাতে বাগবিতণ্ডার পর রাতে নিজের ঘরে চলে যায় হাবিলদার প্রবীণ কুমার। 

দলিত হলেও তাঁরা হিন্দু, তবে কেন তাঁদের জন্য আলাদা শ্মশান ঘাট, সওয়াল হাইকোর্টের

এরপর ভোররাতে ওই হাবিলদারের শোওয়ার ঘরে ঢুকে নিজের বন্দুক দিয়েই হাবিলদার প্রবীণ কুমারকে খুন করেন রাইফেল ম্যান জয়কুশির। এরপর সেই রিভলভারেই নিজে আত্মঘাতী হন তিনি। 

শেষ হল এক অধ্যায়, প্রয়াত দেশের প্রথম মহিলা ডিজিপি

ভারতকে বিপাকে ফেলার চেষ্টা, অতিরিক্ত জল ছেড়ে বন্যা পরিস্থিতি সৃষ্টি করল পাকিস্তান

শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়-কে শ্রদ্ধাজ্ঞাপন, এবার দেশের বৃহত্তম সুড়ঙ্গ তার নামেই নামাঙ্কিত হওয়ার পথে 

ইতিমধ্যেই তাঁদের দেহ পাঠানো হয়েছে ময়না তদন্তে। অনেকের আবারও এও  দাবি করছেন যে, সেদিন ডিউটি-তে দেরি করে আসার জন্য তাদের মধ্য বচসা বাধে। তবে সে রাতে ঠিক কী ঘটনা ঘটেছিল সেই ঘটনা তদন্তই নেমেছে পুলিশ।