Asianet News BanglaAsianet News Bangla

গর্ভবতী হাতি হত্যায় রাজনৈতিক উত্তাপ ক্রমশই বাড়ছে, মুখ খুললেন কেরলের মুখ্যমন্ত্রী

গর্ভবতী হাতির মৃত্যু নিয়ে রাজনৈতিক পাদর চড়ছে
ঘটনার তীব্র নিন্দা কেন্দ্রীয় মন্ত্রী প্রকাশ জাভড়েকরের
এটা ভারতীয় সংস্কৃতী নয়
অভিযুক্তদের বিচার হবেই বলেন বিজয়ন
 

Justice will prevail says Kerala cm on pregnant elephant killing
Author
Kolkata, First Published Jun 4, 2020, 5:45 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp


কেরলে গর্ভবতী হাতি হত্যার ঘটনা কেন্দ্র করে রীতিমত বাড়ছে রাজনৈতিক উত্তাপ। অবশেষে মুখ খুললেন কেরলের মুখ্যমন্ত্রী পিনারাই  বিজয়ন। বৃহস্পতিবার সোশ্যাল মিডিয়ায় তিনি জানিয়েছেন, দোষীদের শাস্তি দেওয়া হবেই। স্থানীয় প্রশাসন সূত্রের খবর হাতি হত্যায় অভিযুক্তদের খোঁদে শুরু হয়েছে তল্লাশি। ইতিমধ্যেই তিন জন অভিযুক্তকে চিহ্নিত করা গেছে। জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে জানান হয়েছে বনদফতরের সঙ্গে যৌথ উদ্যোগেই ঘটনার তদন্তে নেমে পুলিশ। প্রাশাসনের পক্ষ থেকে আরও জানান হয়েছে মূল অভিযুক্তকে খুঁজে বার করতে যা যা করনীয় সব রকম পদক্ষেপ করা হবে। 

কেরলে হাতির মৃত্যু 'পরিকল্পিত খুন' বললেন রতন টাটা, হিংসাত্মক জেলা মালপ্পুরম বলেন মানেকা গান্ধী ...

সোশ্যায় মিডিয়া কেরলের মুখ্যমন্ত্রী পিরারাই বিজয়ন বলেছেন, পালাক্কাড জেলার ঘটনাটি অত্যান্ত নির্মম। একটি গর্ভবতী হাতি প্রাণ হারিয়েছে। বিষয়টি নিয়ে বহু মানুষই উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন তা আমরা জানতে পেরেছি। তিনি আরও বলেন, উদ্বিগ্ন সকল মানুষকেই আশ্বস্ত করে বলছি তাঁদের এই উদ্বেগ বৃথা যাবে না। দোষীদের বিচার হবেই। 

মোদীর রাজ্যে আবারও অস্বস্তিতে কংগ্রেস, রাজ্যসভা নির্বাচনের আগেই দলে ভাঙন ...
বৃহস্পতিবার সকালেই কেরলের হাতি হত্যা নিয়ে রীতিমত উদ্বেগ প্রকাশ করেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী প্রকাশ জাভড়েকর। তিনি বলেন, তিনি বলেন বাজি ভর্তি আনারস খাওয়ানো এবং হত্যাকরা কখনই ভারতীয় সংস্কৃতি হতে পারে না। কেরলের হাতি হত্যার বিষয়ে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে। সঠিক তদন্ত ও অপরাধীকে গ্রেফতারের সব রকম পদক্ষেপ নেওয়া হবে বলেও তিনি আশ্বস্ত করেছেন। 


সোমবারই সামনে এসেছিল কেরলের সাইলেন্ট ভ্যালি ন্যাশানাল পার্কের একটি গর্ভবতী হাতির মৃত্যু হয়েছে। সেই হাতিকে আনারস খেতে দিয়েছিলেন স্থানীয় গ্রামের বাসিন্দারা। আর সেই আনারসের মধ্যে ভর্তি ছিল বাজি আর বারুদ। বাজি ভর্তি আনারস খেতেই সেটি হাতির মুখের ভিতর ফেটে যায়। মুখ আর শুঁড়ে গুরুতর আঘাত পায়। তারপর থেকে সেই যন্ত্রণা নিয়ে হাতিটি গ্রামেই ছুটে বেড়ায়। প্রবল খউদার জ্বালা আরা যন্ত্রনা সহ্য করেই আশ্রয় নিয়েছিল নদীতে। সেখানেই মৃত্যু হয় গর্ভবতী হাতিটির। 

চিনের স্কুলে নিরাপত্তারক্ষীর ছুরি নিয়ে হামলা, করোনা সংকট কাটিয়ে ওঠার পরই নতুন বিপদ ...

শুধু রাজনৈতিক উত্তাপই নয়। কেরলের হাতি হত্যার ঘটনাকে কেন্দ্র করে সোশ্যাল মিডিয়াতেও চড়তে থাকে উত্তেজনার পারদ। অনেকেই এই ঘটনার তীব্র নিন্দা করেছেন।

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios