Asianet News BanglaAsianet News Bangla

TMC: 'সংসদকে বদ্ধ ঘর হতে দেব না' তৃণমূল কংগ্রেসের নিশানায় বিজেপি

ডেরেক বলেছেন তৃণমূল কংগ্রেস, টেলিভিশন কভারেজের ওপর থেকে সেনশরশিপ তুলে নেওয়া বা সংশোধন করার আবেদন জানিয়েছেন প্রিসাইডিং অফিসারদের কাছে।

parliament can not converted into a closed chamber says tmc bsm
Author
Kolkata, First Published Dec 2, 2021, 9:25 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

টেলিভিশনের ওপর সেন্সারশিপের (TM Censorship) বিরুদ্ধে সরব হল তৃণমূল কংগ্রেস (TMC)। তৃণমূল কংগ্রেস নেতা তথা রাজ্যসভায় সাংসদ ডেরেক ওব্রায়েন বৃহস্পতিবার বলেছেন সংসদকে কখনও একটি 'বন্ধ কক্ষে' (Closed Chamber) পরিণত করতে দেওয়া যাবে না। তৃণমূল কংগ্রেসের পক্ষে থেকে সাংবাদিক সংম্মেলেই একই কথা বলা হয়েছে। সংসদ কখনই শুধুমাত্র বিজেপির  জন্য বা বিজেপির দ্বারা বা বিজেপির নয়। এখানে সকলেরই কথা বলা ও শোনার অধিবার কয়েছে। পাশাপাশি সংদদের অধিবেশন  গোটা দেশের মানুষের কাছে পৌঁছে দেওয়ায় জরুরি। 

ডেরেক বলেছেন তৃণমূল কংগ্রেস, টেলিভিশন কভারেজের ওপর থেকে সেনশরশিপ তুলে নেওয়া বা সংশোধন করার আবেদন জানিয়েছেন প্রিসাইডিং অফিসারদের কাছে। তিনি আরও বলেন সমস্ত প্রতিবাদ কর্মসূচিও টিভিতে সেনশর করা হচ্ছে । এই ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছেন তাঁরা। সেন্সরশিপ বন্ধ করার দাবি জানিয়েছেন তাঁরা। সংসদকে কখনও একটি বদ্ধ কক্ষে পরিণত হতে দেওয়া যাবে না। তিনি আরও বলেন তৃণমূল কংগ্রেসের অবস্থান বিক্ষোভ টিভিতে প্রচার করার জন্য অনেক সাংবাদিককে সমস্যার মধ্যে পড়তে হয়েছে। তাঁরা যাতে আগের মতই সুযোগ সুবিধে পান তার দিকেও দৃষ্টি আকর্ষণ করা হয় তৃণমূল কংগ্রেসের পক্ষ থেকে। 

তৃণমূল কংগ্রেসের অভিযোগ বিজেপি সাংসদে সুষ্ঠিভাবে অধিবেশন পরিচালনা করতে চায় না। সংসদের কোনও বিষয়ই তারা উত্তর দিতে আগ্রহী নয়। বিজেপি যদি সংসদে বিরোধীদের মুখ বন্ধ করে দিতে পারে তাহলে দেশের মানুষের কাছে আর কোনও বিষয়ই তারা উত্তর দেওয়ার বিষয়য়ে দায়বদ্ধ থাকবে না বলেও অভিযোগ করেন তিনি। 

তৃণমূল কংগ্রেসের পক্ষ থেকে জানান হয়েছে ১২ সাংসদের বহিষ্কারের প্রতিবাদে অবস্থান বিক্ষোভ করবে। অন্যদিকে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বুধবার বলেছিলেন ইউপিএ-র কোনও অস্তিত্ব নেই। এদিন দলনেত্রীর সুরে সুর মিলিয়ে ডেরেক বলেন সত্যি বর্তমানে ইউপিএ-র কোনও অস্তিত্ব নেই। ২০০৪ সালে রাজনৈতিক বাধ্যবাধকতায় ইউপিএ তৈরি হয়েছিল। তারপর থেকে ২০১৪ সাল পর্যন্ত ইউপিএ- সরকার ছিল দিল্লিতে। কিন্তু বর্তমানে তার কোনও অস্তিত্ব নেই। কংগ্রেসের হাতে ১৫০ আসনও নেই বলে তিনি জানিয়েছেন। তবে তৃণমূল কংগ্রেসের মূল লক্ষ্য যে রাজ্য ও কেন্দ্র থেকে বিজেপিকে হারানো- তাইও স্পষ্ট করে দেন ডেরেক। 

বুধবার বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee) এনসিপি নেতা শারদ পাওয়ারের (NCP Leader Sharad Pawar)সঙ্গে বৈঠক সেরে বেরিয়ে আসার পরই জানিয়ে দিয়েছিলেন '২০২৪ সালের জন্য ইউপিএ (UPA) জোট বলে আর কিছু নেই।' তিনি আরও বলেন ইউপিএ কী? কোনও ইউপিএ নেই। তিনি আরও বলেন ফ্যাসিবাদের বিরুদ্ধেকেই লড়াই  করার জন্য একটি দৃঢ়় বিকল্প পথ তৈরি করা উচিৎ।  বর্ষিয়ান নেতা শারদ পাওয়ারের সঙ্গে দেশের রাজনৈতিক অবস্থা নিয়ে আলোচনা করেছেন বলেও জানিয়েছেন। 

Congress vs TMC: মমতার বিরুদ্ধে 'তীব্র আক্রমণ', নয়া কৌশল কংগ্রেসের

Central Vista: দ্রুত গতিতে চলছে সেন্ট্রাল ভিস্তা প্রকল্পের কাজ, এখনও পর্যন্ত বরাদ্দ ১২৮৯ কোটি টাকা

Work From Home: কাজের বাইরে কর্মীদের সঙ্গে যোগাযোগ করলে শাস্তির খাঁড়া, পাশ হল নতুন আইন

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios