কেন্দ্রের তরফে তিন তালাক নিয়ে নয়া আইন নিয়ে আসার পরেও এমন অনেক ঘটনার কথা প্রকাশ্যে আসছে। এইসব ঘটনার জেরে বলতেই হয় যে পরিবর্তীত আইনের কোনও প্রভাবই যেন মানুষের ওপর পড়েনি। সম্প্রতি ঘটে গিয়েছে এক অদ্ভুত ঘটনা, যেখানে বিবাহের মাত্র ঘণ্টা-খানেকের মধ্যে স্ত্রীকে তিন তালাক দিল এক ব্যক্তি।

ঘটনাটি ঘটেছে রাজস্থানে। রাজস্থানের নাদীম নামে এক ব্যক্তি বৃহস্পতিবার বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয় তাজ শহরের হরিপ্রভাত এলাকার ২৬ বছরের রুবির সঙ্গে। সুষ্ঠুভাবেই বিবাহ অনুষ্ঠান সুসম্পন্ন হয়। কিন্তু এরপরেই ঘটে সেই ঘটনা। 

ফুরিয়ে আসছে দিন, ২০৫০-এর মধ্যেই জলের তলায় চলে যেতে পারে এই দেশের রাজধানী

পুলিশ সূত্রে খবর, বিয়ের পর পণ হিসাবে নববধূর পরিবারের কাছে একটি গাড়ি চেয়ে বসে সাতাশ বছরের নাদীম আলিয়াজ পাপ্পান। কিন্তু নতুন জামাইকে পণ হিসাবে গাড়ি দিতে অপারগ বলে জানান কনের পরিবার। আর তার পরেই উপস্থিত সকল আত্মীয়-স্বজন, মৌলবি-র সামনে স্ত্রী-কে তিন তালাক দেয় নাদীম।

রাজৌরি সেক্টরে ফের গুলির লড়াই, পাক সেনার গুলিতে শহিদ এক ভারতীয় জওয়ান

এখানেই শেষ নয় 'কবুল হ্যায়' বলার এক ঘণ্টার মধ্যে তিল তালাক বলার পর নাদীমের পরিবার অকথ্য ভাষায় অপমান করে রুবির পরিবারকে। শুধু তাই নয়,তাঁদের ওপর পাথরও ছোঁড়া হয় বলে অভিযোগ। এরপর পুলিশের কাছে অভিযোগ দায়ের করা হলে নাদীম-সহ তাঁর পরিবারের আটজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে এবং তাদের বিরুদ্ধে পণ চাওয়ার অভিযোগে ভারতীয় দণ্ডবিধি ৪৯৮এ ধারায় মামলা রুজু করা হয়েছে।