Asianet News BanglaAsianet News Bangla

হাতরাস ষড়যন্ত্র মামলায় সাংবাদিক সিদ্দিকী কাপানকে জামিন দিল সুপ্রিম কোর্ট

সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি উদয় উমেশ ললিতের নেতৃত্বে একটি বেঞ্চ উত্তরপ্রদেশের জেল থেকে মুক্তি পাওয়ার পর কাপ্পানকে আগামী ছয় সপ্তাহ দিল্লিতে থাকার নির্দেশ দিয়েছে। বেঞ্চ তাকে তার পাসপোর্ট জমা দিতে এবং প্রতি সোমবার থানায় রিপোর্ট করতে বলা সহ কিছু শর্ত আরোপ করে।

The Supreme Court granted bail to journalist Siddique Kappan in Hathras conspiracy case bpsb
Author
First Published Sep 9, 2022, 3:54 PM IST

শুক্রবার কেরালার সাংবাদিক সিদ্দিকী কাপ্পানকে জামিন দিল সুপ্রিম কোর্ট। উত্তর প্রদেশের হাথরাস ষড়যন্ত্র মামলায় ২০২০ সালের ছয়ই অক্টোবর থেকে কাপান পুলিশ হেফাজতে ছিলেন। বর্তমানে, আদালত কাপ্পানকে আগামী ৬ সপ্তাহ দিল্লিতে থাকতে বলেছে। এরপর তাকে কেরালায় যাওয়ার অনুমতি দেওয়া হয়। এই সময়ে, কাপ্পান প্রতি সপ্তাহে স্থানীয় থানায় এবং অন্যান্য শর্তাবলী সহ তার উপস্থিতির প্রমাণ থানাকে দেবে বলে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। 

সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি উদয় উমেশ ললিতের নেতৃত্বে একটি বেঞ্চ উত্তরপ্রদেশের জেল থেকে মুক্তি পাওয়ার পর কাপ্পানকে আগামী ছয় সপ্তাহ দিল্লিতে থাকার নির্দেশ দিয়েছে। বেঞ্চ তাকে তার পাসপোর্ট জমা দিতে এবং প্রতি সোমবার থানায় রিপোর্ট করতে বলা সহ কিছু শর্ত আরোপ করে।

সুপ্রিম কোর্ট গত মাসে কেরালার সাংবাদিকের জামিনের আবেদনে উত্তরপ্রদেশ সরকারের কাছে প্রতিক্রিয়া চেয়েছিল। এলাহাবাদ হাইকোর্টের লখনউ বেঞ্চ এই মাসের শুরুতে কাপ্পানের জামিনের আবেদন নাকচ করেছিল। হাতরাস ষড়যন্ত্র মামলায় বেআইনি কার্যকলাপ (প্রতিরোধ) আইনের অধীনে মামলা করা হয়েছিল এই সাংবাদিকের বিরুদ্ধে।

২০২০ সালে, হাতরাসে এক দলিত নাবালিকা মেয়েকে গণধর্ষণের পর হত্যা করা হয়েছিল। ঘটনার পর, কাপ্পানকে UAPA এর ধারা ১৭/১৮, ধারা ১৫৩এ/২৯৫এ আইপিসি, ৬৫/৭২ আইটি আইনের অধীনে দাঙ্গা উসকে দেওয়ার চেষ্টা করার অভিযোগে আটক করা হয়েছিল।

পপুলার ফ্রন্ট অফ ইন্ডিয়া (পিএফআই) এর সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে চারজনের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধি এবং ইউএপিএর বিভিন্ন বিধানের অধীনে এফআইআর দায়ের করা হয়েছিল। PFI এর বিরুদ্ধে অতীতে দেশ জুড়ে নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনের বিরুদ্ধে বিক্ষোভে অর্থায়নের অভিযোগ আনা হয়েছিল তাঁর বিরুদ্ধে। পুলিশ এর আগে দাবি করেছিল যে অভিযুক্তরা হাথরাসে আইনশৃঙ্খলা বিঘ্নিত করার চেষ্টা করছিল।

দাঙ্গায় উসকানি দেওয়ায় ৪৫ হাজার টাকা পেয়েছিলেন কাপ্পান!
প্রাথমিকভাবে, প্রধান বিচারপতি ললিতের একটি বেঞ্চ কাপ্পানের বিরুদ্ধে কী পাওয়া গেছে তা জানতে চেয়েছিলেন। কাপ্পানের বিরুদ্ধে পাওয়া প্রমাণের উল্লেখ করে, উত্তরপ্রদেশ রাজ্যের পক্ষে উপস্থিত সিনিয়র আইনজীবী মহেশ জেঠমালানি বলেছেন, “কাপ্পান ২০২০ সালের সেপ্টেম্বরে পিএফআই মিটিংয়ে অংশ নিয়েছিলেন। বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয়, তারা দেশের স্পর্শকাতর এলাকায় গিয়ে দাঙ্গা উসকে দেবে। পাঁচই অক্টোবর, কাপ্পান দাঙ্গা উসকে দেওয়ার লক্ষ্যে হাতরাসে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেন। দাঙ্গায় উসকানি দেওয়ার জন্য তাকে ৪৫ হাজার টাকাও দেওয়া হয়।

হাতরাস গণধর্ষণের পরে, কাপ্পানকে ২০২০ সালের পাঁচই অক্টোবর মথুরা থেকে উত্তরপ্রদেশ পুলিশ গ্রেপ্তার করেছিল। সেই সময় কাপ্পান মথুরা থেকে হাতরাস যাচ্ছিল। বিষয়টিকে গুরুতর বলে বর্ণনা করে এলাহাবাদ হাইকোর্ট কাপ্পানের জামিন প্রত্যাখ্যান করেছিল। উত্তরপ্রদেশ সরকার কাপ্পানের জামিনের আবেদনের বিরোধিতা করেছিল। 

উত্তরপ্রদেশ সরকার সুপ্রিম কোর্টে দেওয়া হলফনামায় বলেছিল যে কাপ্পানকে দেশবিরোধী কার্যকলাপে জড়িত এবং পিএফআই-এর মতো একটি চরমপন্থী সংগঠনের সাথে সম্পর্ক রয়েছে। কাপ্পান সন্ত্রাসী ও ধর্মীয় সহিংসতা উস্কে দেওয়ার ষড়যন্ত্রে জড়িত ছিল।

'আমি কি কেন্দ্রের শ্রমিক?', কর্তব্যপথে নেতাজি মূর্তি উন্মোচন নিয়ে মোদীকে কড়া বার্তা মমতার

কথা রাখলেন হাসিনা, সীমান্ত পেরিয়ে ৪ টন ইলিশ এল রাজ্যে- পুজোর মুখে আরও ইলিশ আসবে

মহিলাকে ঝোপের মধ্যে নিয়ে গিয়ে গণধর্ষণ, প্রতিবাদে বিজেপির অবরোধ বিক্ষোভে উত্তাল টিটাগড়

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios