বরাবরই ডিম খেতে খুব ভালবাসতেন সুভাষ যাদব। আর সেই ডিম প্রীতিই শেষ অবধি মাত্র ৪২ বছর বয়সে কেড়ে  নিল তাঁর জীবন।

উত্তরপ্রদেশের জৌনপুর জেলার বাসিন্দা ছিলেন সুভাষ। গত সোমবার এক বন্ধুর সঙ্গে গিয়েছিলেন জৌনপুরের বিবিগঞ্জ বাজার এলাকায়। সেখানে কথায় কথায় তাঁর ডিম বাল লাগার প্রসঙ্গ ওঠে। এরপর, কে আগে ৫০টি ডিম খেতে পারবেন এই নিয়ে ববাজি ধরেন দুই বন্ধু। ঠিক হয়, যিনি বাজি জিতবেন তিনি ২ হাজার টাকা পাবেন।

এরর দুজনে ডিম খাওয়া শুরু করেন। একে একে ৪১ টি ডিম খেয়ে ফেলেন সুভাষ যাদব। কিন্তু ৪২তম ডিমটি খাওয়া শুরু করার সময়ই হঠাত অসুস্থবোধ করেন এবং অজ্ঞান হয়ে মাটিতে পড়ে যান তিনি।

স্থানীয় বাসিন্দারা দেরি না করে তাঁকে জেলা হাসপাতালে নিয়ে যান। অবস্থার অবনতি হওয়ায় সঞ্জয় গান্ধি পোস্ট গ্র্যাজুয়েট ইনস্টিটিউট অফ মেডিকেল সায়েন্সে পাঠানো হয় তাঁকে। সেখানেই তাঁরর মৃত্যু হয়।

চিকিৎসকরা তাঁর মৃত্যুর কারণ হিসেবে সরাসরি ডিমকে দায়ী করেননি। তবে তাঁদের মতে একসঙ্গে অতিরিক্ত খাওয়ার কারণেই মৃত্যু হয়েছে সুভাষ যাদবের।