ভিডিওটি অনলাইনে ভাইরাল হয়েছে। সিসিটিভি ক্যামেরার ফুটেজ। তাতে দেখা যাচ্ছে এক অদ্ভূত দৃশ্য। দুই মহিলা একটি পলিথিন ব্যাগে মনের সুখে থুতু ফেলছেন। তারপর সেই থুতু ব্যাগটি ছুঁড়ে দিচ্ছেন একটি বাড়ির ভিতর। ভিডিওটি  রাজস্থানের কোটা শহরের ভল্লাভাদি এলাকার বলে জানা গিয়েছে। এইভাবে ওই মহিলারা করোনাভাইরাস ছড়িয়ে দেওয়ার চেষ্টা করছেন পুলিশে অভিযোগ জানিয়েছেন ওই বাড়ির সদস্যরা। স্থানীয় পুরসভার পক্ষ থেকে ওই বাড়িটি জীবানুমুক্তও করা হয়েছে।

গুমানপুরা পুলিশের সার্কেল ইন্সপেক্টর মনোজ সিকারওয়ার জানিয়েছেন, শুধু ওই একটি বাড়ি থেকেই নয়, গত কয়েকদিন ধরে ওই এলাকার একাধিক বাড়ি থেকে একই ধরণের অভিযোগ পেয়েছেন তাঁরা। কিন্তু, ওই মহিলাদের ধরা যায়নি। সত্যিই তারা ওভাবে কোভিড-১৯ ছড়িয়ে দিতে চাইছে না, এর পিছনে অন্য কোনও উদ্দেশ্য আছে, সবটাই তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। তবে, এলাকায় করোনা-সন্ত্রাস ছড়িয়ে দিতে তারা ইতিমধ্যেই সফল হয়েছেন।

ভল্লাভাদি-র এক বাসিন্দা দাবি করেছেন, দুই মহিলা নয়, ওই দলের মহিলা সংখ্যা অন্তত ৪ থেকে ৫ জন। সঙ্গে বেশ কয়েকটি শিশু-ও রয়েছে। রবিবার সকালে তারা আচমকাই ওই বাসিন্দার বাড়ির সামনে আসে। তারপর প্লাস্টিকের ব্যাগে থুতু ফেলতে শুরু করে। তাদের উদ্দেশ্য বুঝে ওঠার আগেই তারা ওই ব্যাগ ছুড়ে ফেলে তার বাড়ির ভিতর। এরপর ওই বাসিন্দা তাদের ডাকলে, মহিলারা সেখান থেকে ছুটে পালিয়ে যায় বলে অভিযোগ। এরপরই পুলিশে খবর দিয়েছিলেন তিনি।


করোনা মোকাবিলায় 'ফুলমার্কস' পাননি মোদী, অক্সফোর্ড-এর জবাবে মুখ পুড়ল বিজেপি-র
রাস্তায় গড়ানো দুধ একইসঙ্গে চাটছে মানুষ ও কুকুর, করোনায় প্রকট অনাহারের যাতনা, দেখুন
সামাজিক দূরত্ব কতটা প্রতিরোধ করছে করোনাভাইরাস-কে, দেখে নেওয়া যাক বিভিন্ন দেশের ছবিটা

এখনও কেউ ধরা না পড়ায়, বিষয়টি নিয়ে রহস্য থেকেই গিয়েছে। এই অবস্থায় শুধু ভল্লাভাদি-তেই নয়, গোটা কোটা শহরেই এই ঘটনা নিয়ে চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে।