অবশেষে প্রায় ২ মাসের মহাযুদ্ধের শেষ লড়াই। আইরিএল ২০২০-র ফাইনালে মুখোমুখি হতে চলেছে মুম্বই ইন্ডিয়ান্স ও দিল্লি ক্যাপিটালস। একদিকে চারবারের আইপিএল চ্যাম্পিয়ন দল মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের কাছে পঞ্চমবার ট্রফি ঘরে তোলার হাতছানি। অপরদিকে প্রথমবার ফাইনালে উঠে ট্রফি ও ইতিহাসের পাতায় নাম তোলা হাতছাড়া করতে নারাজ দিল্লি। তাই আজ মেগা ফাইনালে দুবাই ইন্টারন্যাশানাল স্টেডিয়ামে একে অপরকে এক ইঞ্চিও জমি হাতছাড়া করতে দুই দলের অধিনায়ক রোহিত শর্মা ও শ্রেয়স আইয়র। এদিন টসে জিতে ব্য়াটিংয়ের সিদ্ধান্ত দিল্লি অধিনায়ক শ্রেয়স আইয়রের। ফাইনালের মত মেগা ম্যাচে বড় টার্গেট সেট করে বিপক্ষকে চাপে রাখার জন্যই এই সিদ্ধান্ত।

ফাইনাল খেলার অভিজ্ঞতার নিরিখে দিল্লির থেকে অনেকটাই এগিয়ে মুম্বই। শক্তির বিচারেও এগিয়ে রোহিত শর্মার দল। ফাইনালেও তাদের পূর্ণ শক্তি নিয়ে ঝাঁপাতে চলেছে মুম্বই ইন্ডিয়ান্স পল্টন। ওপেনিংয়ে শুরু করবেন অধিনায়ক রোহিত শর্মা ও উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান কুইন্টন ডিকক। এরপর মিডল অর্ডারে থাকছেন সূর্যকুমার যাদব, ইশান কিষাণ। লোয়ার মিডল অর্ডারে হার্ড হিটারের ভূমিকায় থাকছেন কায়রন পোলার্ড ও হার্দিক পান্ডিয়া। দলের স্পিন বিভাগের দায়িত্ব সামলাবেন ক্রুণাল পান্ডিয়া ও জয়ন্ত যাদব। পেস অ্যাটাকে থাকছেন ন্যাথান কুল্টারনাইল ও ট্রেন্ট বোল্ট ও জসপ্রীত বুমরার দুরন্ত জুটি। তবে ফাইনালের মত মেগা ম্যাচে দিল্লিকে হালকাভাবে নিতে নারাজ মুম্বই। তবে দলের জয়ের বিষয়ে আত্মবিশ্বাসী মুম্বই।

অপরদিকে ফাইনাল খেলার অভিজ্ঞতা না থাকলেও, মুম্বইকে সমানে সমানে টক্কর দিতে প্রস্তুত দিল্লি। প্রতিযোগিতায় এখনও পর্যন্ত তিনবার মুম্বইয়ের কাছে হারতে হলেও, পাইনালে নতুন কাহিনি লিখতে চাইছে অধিনায়ক শ্রেয়স আইয়রের দল। দিল্লির ব্যাটিং লাইনআপে থাকছেন শিখর ধওয়ান, মার্কাস স্টয়নিস, শ্রেয়স আইয়র,ঋষভ পন্থ, অজিঙ্কে রাহানে, শেমরন হেটমায়ার। দলে অলরাউন্ডারের ভূমিকায় দেখা যাবে অ্যাক্সর প্যাটেলকে। বোলিং লাইনআপে থাকছেন রবিচন্দ্রন অশ্বিন, প্রবীন দুবে, কাগিসো রাবাডা, আনরিখ নকিয়া। ধারেবারে মুম্বই এগিয়ে থাকলেও প্রথমবার ট্রফির এত কাছে এসে তা জেতার বিষয়ে বদ্ধপরিকর কোচ রিকি পন্টিংয়ের দল। সব মিলিয়ে আইপিএল ২০২০-র ফাইনালে এক থ্রিলার দেখার অপেক্ষায় বিশ্ব জুড়ে ক্রিকেট প্রেমিরা।