Asianet News BanglaAsianet News Bangla

আরসিবির হয়ে বিধ্বংসী অর্ধশতরান ডিভিলিয়ার্সের, রান পেলেন ফিঞ্চ ও পাড়িকল, মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের টার্গেট ২০২ রান

  • রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোর বনাম মুম্বই ইন্ডিয়ান্স ম্যাচ
  • প্রথম ইনিংসে ব্যাটে বলের দুরন্ত লড়াই দেখল ক্রিকেট বিশ্ব
  • আরসিবির হয়ে দুরন্ত অর্ধশতরান ফিঞ্চ, পাড়িকল ও ডিভিলিয়ার্সের
  • ২০ ওভার শেষে বিরাটের দলে স্কোর দাঁড়ায় ২০১ রান
     
Royal Chalengers Bangalore puts 202 runs target to Mumbai Indians in ipl 2020 spb
Author
Kolkata, First Published Sep 28, 2020, 9:16 PM IST

আইপিএলের গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে মুম্বইকে ২০২ রানের টার্গেট দিল আরসিবি। ব্যাট হাতে ২৪ বলে ৫৫ রানের বিধ্বংসী ইনিংস খেললেন এবি ডিভিলিয়ার্স। এছাড়াও অর্ধশতরান করেন ফিঞ্চ ও পাড়িকল। কিন্তু এদিনও ব্যাট হাকে ফের ব্যর্থ বিরাট কোহলি।এদিন টসে জিতে প্রথমে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের অধিনায়ক রোহিত শর্মা। আরসিবির হয়ে ব্যাট করতে নেমে প্রথমে বেশ কিছু সুযোগ দেন অ্যারন ফিঞ্চ ও দেবদূত পাড়িকল। কিন্তু সেই সুযোগ কাজে লাগাতে পারেনি মুম্বই ইন্ডিয়ান্স দল। তারপরই ঝড়ো ইনিংস খেলা শুরু করেন ফিঞ্চ। একে পর এক বোলারদের বিরুদ্ধে আক্রমণাত্ব শট খেলা শুরু করেন অজি তারকা ব্যাটসম্যান। তাকে যোগ্য সঙ্গত দেন দেবদূত পাড়িকল। প্রথম পাওয়ার প্লের ৬ ওভারে রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোরের স্কোর দাঁড়ায় বিনা উইকেটে ৫৯।

পাওয়ার প্লে-র পর কিছুটা আঁটোসাটো বোলিং করেন আরসিবি বোলাররা। কিন্তু এরইমধ্যে নিজের অর্ধশতরানও পূরণ করে ফেলেন অ্য়ারন ফিঞ্চ। অপরদিকে একটু ধীরে হলেও উইকেট বাঁচিয়ে নিজের ইনিংস চালিয়ে যান দেবদূত পাড়িকল। নবম ওভারের শেষ বলে আউট হন অ্যারন ফিঞ্চ। ট্রেন্ট বোল্টের বলে আউট হন তিনি। ফিঞ্চ করেন ৩৫ বলে ৫২ রান। ৭টি চার ও একটি ৬ মারেন তিনি। ১০ ওভার শেষে আরসিবির স্কোর দাঁড়ায় ৮৫ রানে এক উইকেট। এদিনও ব্য়াট হাতে রানে ফিরতে ব্যর্থ হন আরসিবি অধিনায়ক বিরাট কোহলি। ১৩ তম ওভারে মাত্র ৩ রান করে আউট হন তিনি। বিরাটের উইকেট নেন রাহুল চাহার। ১৪ তম ওভারে প্যাটিনসনকে পরপর দুটি ছয় মারেন পাড়িকল। ১৪ ওভার শেষে স্কোর দাঁড়ায় ২ উইকেটে ১১০। ১৫ তম ওভারেও একটি করে চার মারেন এবিডি ও পাড়িকল। ওভার শেষে স্কোর দাঁড়ায় ১২৩। 

১৫ ওভার শোষে রানের গতিবেগ বাড়ায় আরসিবি। ১৬ তম ওভারে পোলার্ডের বলে আসে ১৩ রান। ১৭ তম ওভারের প্রথম বলেই বুমরাকে চার মারেন এবিডি। তৃতীয় বলে আরও একটি ছয় মারেন। ১৭ তম ওভার শেষ বলেও বুমরাকে আরও একটি বিশাল ছক্কা মারেন ডিভিলিয়ার্স। আরসিবির স্কোর দাঁড়ায় ১৫৪। ১৮ ওভারের শুরুতে বোল্টের বলে বলে আউট হন পাড়িকল। ৫৪ রান করেন তিনি। ১৮ ওভারের শেষ বলে বোল্টকে ছয় মারেন এবিডি। স্কোর দাঁড়ায় ৩ উইকেটে ১৬৪। ১৯ তম ওভার শেষে বলে বুমরাকে আরও একটি বিশাল ছয় মেরে নিজের হাফ সেঞ্চুরি পূরণ করেন ডিভিলিয়ার্স। মাত্র ২৩ বলে হাফ সেঞ্চুরি করেন তিনি। ২০ তম ওভারে প্য়াটিনসনকে তিনটি ছয় মারেন শিবম দুবে। ২০ ওভার শেষে আরসিবির স্কোর দাঁড়ায় ২০১ রান। ২৪  বলে ৫৫ রান করে নট আউট থাকেন এবি ডিভিলিয়ার্স ও ১০ বলে ২৭ রান করে নট আউট থাকেন শিবম দুবে। মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের টার্গেট ২০২।
 

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios