তাকে জামশেদপুর এফসির বিরুদ্ধে বিশ্রাম দেওয়ার ভাবনা ছিল কোচ অ্যান্টোনিও লোপেজ হাবাসের। কিন্তু তিনি বলেছিলেন, জয় দিয়েই ভ্যালেন্টাইন ডে সেলিব্রেট করবেন। সঙ্গে সেলিব্রেট করবে গোটা দল। আর রবিবাসরীয় আইএসএলে ফের একবার শেষ মুহুর্তে গোল করে আরও একবার জয়ের নায়ক হয়ে উঠলেন এটিকে মোহনবাগানের গোল মেশিন রয় কৃষ্ণা। তার গোলে জামশেদপুরকে হারিয়ে লিগ টেবিলের শীর্ষে পৌছে গেল সবুজ-মেরুণ ব্রিগেড। 

 

 

এদিন ম্যাচের প্রথম থেকেই টানটান উত্তেজনায় শুরু হয় কেলা। প্রথম পর্বে জানশেদপুর এফসির বিরুদ্ধে হারের স্মৃতি দগদগে ছিল এটিকে মোহনবাগান প্লেয়ারদের। তারউপর দ্বিতীয় পর্বেও হারানোর হুঙ্কার দিয়েছিল জামশেদপুর। তাই প্রথমে একটু ধীরে চলো নীতি নিয়েই এগোয় লোপেজ হাবাসের দল। ম্য়াচের প্রথমার্ধে দুই দলই বেশ কয়েকটা গোল করার সুযোগ তৈরি করে। কিন্তু স্কোরলাইনে তা কনভার্ট করতে সক্ষম হয়নি কোনও দল। গোলশূন্য ব্যবধানেই শেষ হয় প্রথমার্ধের খেলা।

 

 

দ্বিতীয় গোলের লক্ষ্যে ঝাপায় দুই দল। রণনীতি কিছুটা পরিবর্তন করেন বাগান কোচ হাবাস ও জামশেদপুর কোচ ওয়েন কোয়েল। কিন্তু ম্যাচের ৮৪ মিনিট পর্যন্ত দুই দলের জমাটি রক্ষণ ভাঙতে সমর্থ হয়নি কোনও দল। কিন্তু ম্যাচের ৮৫ মিনিটে গোল করে মোহনবাগানকে কাঙ্খিত ৩ পয়েন্ট এনে দেন রয় কৃষ্ণা। এই ম্যাচ জয়ের ফলে ১৭ ম্যাচে ৩৬ পয়েন্ট নিয়ে লিগ টেবিলের শীর্ষ পৌছে গেল হাবাস ব্রিগেড। যদিও এক ম্যাচ কম খেলে ৩৪ পয়েন্টে রয়েছে মুম্বই। তবে ভালোবাসার দিনে জয় পেয়ে খুশি গোট সবুজ-মেরুণ শিবির।