ফিকে নয় এবার কার্যত এবার অসম্ভব হয়ে উঠছে আইএসএলে এসসি ইস্টবেঙ্গলের শেষ চারে ওঠার লড়াই। এই মরসুমে একেবারে চেনা ছন্দে না থাকা বেঙ্গালুরু এফসির বিরুদ্ধেও গুরুত্বপূর্ণ ম্য়াচে ২-০ গোলে হারল রবি ফাউলারের দল। ম্যাচে বেঙ্গালুরুর হয়ে  একটি গোল করেন ক্লেইটন সিলভা, অপর একটি আত্মঘাতি গোল হয় লাল-হলুদের গোল রক্ষক দেবজিৎ মজুমদারের বদান্যতায়। একের পর এক ম্য়াচ ড্র ও হারের ফলে হতাশ ইস্টবেঙ্গল কোচ থেকে প্লেয়াররা।

এদিন ম্যাচের শুরু থেকেই খেলার রাশ ধরার চেষ্টা করে এসসি ইস্টবেঙ্গল। পাসিং ফুটবল খেলে , বল পজিশন নিজেদের দখলে রেখে গোল করার পথ খুঁজছিলেন স্টেইনম্য়ান, হলোওে, ব্রাইট এনবাখারেরা। কিন্তু ম্যাচের ১১ তম মিনিটে পাল্টা ইস্টবেঙ্গলের জালে বল জড়িয়ে বেঙ্গালুরুকে এগিয়ে দেন ক্লেইটন সিলভা। এরপর ম্যাচের প্রথমার্ধে বেশ কিছু সুযোগ তৈরি করে লাল-হলুদ প্লেয়াররা কিন্তু গোলের মুখ খুলতে সক্ষম হননি। ম্যাচের ৪৫ মিনিটে দেবজিৎ মজুমদারের আত্মঘাতি গোলে ব্যবধান ২-০ করে নওসাদ মুসার দল।

দ্বিতীয়ার্ধে ম্য়াচে ফেরার জন্য মরিয়া হয়ে চেষ্টা করে রবি ফাউলারের দল। কিন্তু একের পর এক আক্রমণ দানা বাধলেও তা বেঙ্গালুরুরর রক্ষণকে ভেদ করতে সমর্থ হয়নি। কিছু সুযোগ তৈরি করেছিল বেঙ্গালুরুও। তারাও জালে আর বল জড়াতে পারেনি। ফলে শেষ পর্যন্ত ২-০ ব্যবধানে ম্যাচ হেরে মাঠ ছাড়তে হয় এসসি ইস্টবেঙ্গলকে। এই ম্যাচ হারে র ফলে ১৫ ম্যাচে ১৩ পয়েন্ট নিয়ে লিগ টেবিলের দশম স্থানে থাকল ফাউলারের দল। ৭ ফেব্রুারি জামসেপুরের বিরুদ্ধে পরবর্তী ম্য়াচ এসসি ইস্টবেঙ্গলের।