সোমবার আইএসএলের মেগা ম্যাচে মুখোমুখি এটিকে মোহনবাগান ও বেঙ্গালুরু এফসি। ৬ ম্যাচে ১৩ পয়েন্ট নিয়ে লিগ টেবিলের দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে অ্যান্টোনিও লোপেজ হাবাসের দল। অপরদিকে, সমসংখ্যক ম্যাচে ১২ পয়েন্ট লিগ টেবিলের ষষ্ঠ স্থানে রয়েছে বেঙ্গালুরু এফসি। প্রতিযোগিতায় এখনও পর্যন্ত অপরাজিতও রয়েছে কার্লোস কুয়াদ্রাতের দল। এই পরিস্থিতিতে গোয়ার ফতোরদা স্টেডিয়ামে সোমবার বেঙ্গালুরু সামনে হাতছানি রয়েছে এটিকে মোহনবাগানকে হারিয়ে লিগ টেবিলের দ্বিতীয় স্থানে উঠে আসার। অপরদিকে, প্রথম স্থানে থাকা মুম্বইকে ধরতে হলে এই ম্যাচ থেকে জয় ছাড়া আর কিছুই ভাবছেন না সবুজ-মেরুণ কোচ।

বেঙ্গালুরু ম্যাচের আগে নিজের দল নিয়ে যথেষ্ট আত্মবিশ্বাসী বাগানের স্প্যানিশ কোচ। শেষ ম্যাচে জয়ে ফিরে দল যে ফের ফুরফুরে মেজাজে রয়েছে তা আগেই জানিয়ে দিয়েছেন এটিকে মোহনবাগান প্লেয়াররা। বেঙ্গালুরুর জন্য আলাদা কোনও বিশেষ পরিকল্পনা নেই বলেও জানিয়েছেন হাবাস। দলগত শক্তিতেই বেঙ্গালুরু বধের পরিকল্পনা রয়েছে বাগান শিবিরের। হাবাস জানিয়েছেন,'প্রতিটি ম্যাচ জেতা কখনই সম্ভব নয়। দলে ভারসাম্য রয়েছে। তাই প্রতিটি দলের পক্ষেই তিন পয়েন্ট পাওয়া বেশ কঠিন কাজ। তবে বেঙ্গালুরু শক্ত প্রতিপক্ষ। অন্য ম্যাচের মতোই তিন পয়েন্ট পাওয়ার লক্ষ্যেই মাঠে নামব। এটিকে মোহনবাগানের জন্য এই ম্যাচটা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। প্রতিপক্ষকে আমরা শ্রদ্ধা করি। ৯০ মিনিটেই ম্যাচের ফয়সালা হবে। ব্যক্তিগতভাবে কাউকে মার্কিং নয় সবার বিরুদ্ধেই আমাদের সতর্ক থাকতে হবে।' পাশাপাশি সুনীল ছেত্রী বনাম রয় কৃষ্ণা লড়াই নিয়েও মুখ খুলেছেন হাবাস। তার মতে,'রয় কৃষ্ণ বা সুনীলের মধ্যে কোনও আলাদা লড়াই নেই। দলের বিরুদ্ধে দলের খেলা। কোনও একজনের সম্পর্কে আলাদা করে বলা যাবে না। সুনীল ভারতের সেরা ফুটবলার, কিন্তু লড়াই মাঠেই হবে।' অনুশীলনেও প্লেয়ার বেঙ্গালুরু বধের সব পরিকল্পনা ঝালিয়ে নিয়েছেন বাগান প্লেয়াররা। ম্যাচে জয় ছাড়া কিছুই ভাবছেন না রয় কৃষ্ণা, কার্ল ম্যাকহিউজ, ডেভিড উইলিয়ামস, প্রীতম কোটাল, প্রণয় হালদাররা।

অপরদিকে, শেষ দুই ম্যাচে কেরালা ও ওড়িশাকে হারিয়ে নিজেদের হারানো ছন্দে ফিরে পেয়েছে বেঙ্গালুরু এফসি। এটিকে মোহনবাগানকে হারিয়ে জয়ের হ্যাটট্রিকের লক্ষ্যে আজ ঝাঁপাতে চলেছে কার্লোস কুয়াদ্রাতের দল। ম্যাচের আগে বেঙ্গালুরু কোচ জানিয়েছেন,'ওদের বেশ কয়েকজন টাফ প্লেয়ার রয়েছে। আমরা তাদের ব্যাপারে জানি। বড় চেহারার পাশাপাশি হাই টেম্পো নিয়ে খেলে তারা। এফসি গোয়ার বিরুদ্ধে ম্যাচে দেখেছি কীভাবে ওদের ফুটবলাররা সংগঠিত ফুটবল খেলেছে। প্রতিআক্রমণের সুযোগ কাজে লাগাতে হবে।' গোলের মধ্যে রয়েছে বেঙ্গালুরুর এফসির সুনীল ছেত্রী ক্লেইটন সিলভা, এরিক পারটালু, ডেমিস ডেলগাডোরা। এটিকে মোহনবাগানের বিরুদ্ধে জয়ের বিষয়ে আত্মবিশ্বাসী বেঙ্গালুরু এফসি।

ম্যাচ প্রেডিকশন-
দুই দলই সমান শক্তিশালী। একাধিক তারকা প্লেয়ার রয়েছে এটিকে মোহনবাগান  ও বেঙ্গালুরু এফসি দলে। ফলে আজকের ম্যাচে একে অপরকে এক ইঞ্চি জমি ছাড়তে নারাজ দুই দল। ফুটবল বিশেষজ্ঞদের ম্যাচে যেই দল আজকের ম্যাচে প্রথম গোল করবে তারাই জয়ের সম্ভাবনা বেশি।