ইতিমধ্যেই মা দুর্গার আগমন বার্তায় সেজে উঠেছে চারিদিক। শুধু তাই নয় প্রকৃতিও জানান দিচ্ছে মায়ের আগমনের। আর এরই মধ্যে নিজেদের নতুন নতুন চিন্তাভাবনা নিয়ে প্যান্ডেলের কাজ শুরু করেছে দুর্গা পুজো কমিটি এবং ক্লাবগুলি। তাদের মধ্যেই আবারও একটি নতুন ও অভিনব ভাবনা দিয়ে নিজেদের পুজো প্যান্ডেল সাজাতে চলেছে  কৈলাস বোস স্ট্রিট সর্বজনীন দুর্গোৎসব(চালতাবাগান)। 

এবছর ৫৩ তম বর্ষের শারদোৎসব পালন করেত চলেছে এই ক্লাব। প্রতিবছরের মত এবছরেও অসাধারন থিম ও আলোকসজ্জায় সেজে উঠবে তাদের মণ্ডপ। কলকাতায় থিম পুজোর তালিকায় তারাও নেহাত পিছনে নেই। প্রত্যেক বছরেই তাদের প্যান্ডেল জুড়ে থাকে মানুষের ঢল। এবছর তাদের থিমের মূল আকর্ষণ হল 'এবারের পুজোটা - ওনাদেরই জন্য'। কলকাতা পুলিশকে কুর্নিশ জানাতেই এবার তাঁদের মণ্ডপে ফুটে উঠতে চলেছে এই থিম। অক্লান্ত পরিশ্রম, আত্মত্যাগ, নিষ্ঠা সব কিছুই আবৃত থাকে তাঁদের এই কাজ এবং ইউনিফর্মের মধ্যে। তাঁরা আছে বলেই সাধারন মানুষ সুষ্ঠভাবে ঠাকুর দেখতে পারে। আর তাছাড়া শুধু মাত্র প্যান্ডেল ঘোরাই নয় সারাবছরই সমানভাবে সাধারন মানুষের পাশে থাকেন তাঁরা। সকলে যখন নিজের পরিবারদের নিয়ে পুজোর আনন্দে ব্যাস্ত থাকে তখন তাঁরা ব্যাস্ত থাকেন নিজেদের দায়িত্ব পালনে। নিজের পরিবারের কথা মনে পড়লেও সাধারন মানুষের হাসি মুখ দেখেই তৃপ্তি পায় তাঁরা। তাই এবছর  কৈলাস বোস স্ট্রিট সর্বজনীন দুর্গোৎসব(চালতাবাগান)-এর পুজোর থিমের 'নায়ক' হল কলকাতা পুলিশ। 

গতবছরের প্যান্ডেলেও সেরার তালিকায় পিছিয়ে থাকেনি কৈলাস বোস স্ট্রিট সর্বজনীন দুর্গোৎসব(চালতাবাগান)। বরং তাদের অপূর্ব থিম মুগ্ধ করেছিল দর্শকদের। গতবছরের তাদের থিম ছিল 'প্রেম ও ভক্তি'। অসাধারন কারুকার্যে সাজানো হয়েছিল গতবছরের প্যান্ডেল। তাই এবার তাদের  প্যান্ডেল আরও কতটা ভালো হতে চলেছে বা আলাদা কি রয়েছে  প্যান্ডেলের মধ্যে তা জানার জন্য অবশ্যই দেখতে যেতে হবে কৈলাস বোস স্ট্রিট সর্বজনীন দুর্গোৎসব(চালতাবাগান) এর  পুজোমণ্ডপ।