বিধান নগর উত্তর থানার পর এবার করোনার থাবা বিধান নগর সাইবার ক্রাইম থানায়। সম্প্রতি করোনা উপসর্গ দেখা দেয় বিধান নগর সাইবার ক্রাইম থানার বেশ কিছু পুলিশ কর্মীর। সন্দেহ হতেই তাঁদের লালারস পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়। এরপর করোনা রিপোর্ট পজিটিভ আসে।

পুলিশ সূত্রে খবর, বেশ কিছু পুলিশ কর্মীর জ্বর ছিল। সেই মতো তাদের আইসলেশন এ রেখে তাদের করোনা পরীক্ষার জন্য ১০ জনের নমুনা সংগ্রহ করা হয়। শনিবার সকালে পাঁচ জনের রিপোর্ট আসে পজিটিভ। ইতিমধ্যেই বিধান নগর উত্তর থানায় প্রায় ১০ জন করোনা পজিটিভ রয়েছে। বেশ কয়েকজন আইসলেশনে আছে। বিধান নগর উত্তর থানা ও বিধান নগর সাইবার ক্রাইম থানা একই বিল্ডিংয়ে হওয়াতে চরম আতঙ্ক ছড়িয়েছে থানাতে।

প্রসঙ্গত, করোনা আক্রান্ত হয়ে ফের মৃত্যু হল এক কলকাতা পুলিশকর্মীর।  মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে মৃত্যু হয় তাঁর। লালবাজার সূত্রে খবর, ট্রাফিক পুলিশের ওই কনস্টেবল শিয়ালদহ ট্রাফিক গার্ডে কর্মরত ছিলেন।   এনিয়ে ৭ দিনে করোনায় মৃত্যু দুই পুলিশকর্মীর। লালবাজার সূত্রে খবর, ট্রাফিক পুলিশের ওই কনস্টেবল শিয়ালদহ ট্রাফিক গার্ডে কর্মরত ছিলেন।  বছর পঁয়তাল্লিশের বয়সের ওই পুলিশকর্মী কিডনির অসুখেও ভুগছিলেন।  ৭ জুন তাঁকে মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে এসে ভরতি করানো হয়। সেখানে ক্রমাগত তাঁর শারীরিক অবস্থার অবনতি হতে থাকে। সূত্রের খবর, শ্বাসকষ্টেও ভুগছিলেন বলে তাঁকে ভেন্টিলেশনেও নিয়ে যাওয়া হয়। পরে হাসপাতালের তরফে শনিবার লালবাজারকে জানানো হয় যে সংশ্লিষ্ট পুলিশকর্মীর মৃত্যু হয়েছে। পুলিশকর্তারা জানিয়েছেন, কলকাতা পুলিশের পক্ষ থেকে ওই পুলিশকর্মীর পরিবারকে ১ লক্ষ টাকা দেওয়া হয়েছে। এছাড়াও রাজ্য সরকারের স্বাস্থ্য বিমার ১০ লক্ষ টাকা তাঁর পরিবারের হাতে তুলে দেওয়া হয়।