কলকাতায় এলেন অমিত শাহ। মূলত সিএএ ও এনপিআরের প্রয়োজনীয়তার কথা জনমানসে তুলে ধরতেই শাহের সভা বলে বিজেপি সূত্রে খবর। সকাল ১১টা নাগাদ কলকাতা বিমানবন্দরে নামেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। এর পর রাজারহাটে চলে যায়ন। সেখানে এনএসজি-র একটি অনুষ্ঠানে অংশ নেন তিনি। 

আরও পড়ুন, কলকাতায় অমিত শাহ, বিক্ষোভ কর্মসূচি শহরের বিভিন্ন জায়গায় বিরোধীদের


সূত্রের খবর,  সিএএ-র সমর্থনে প্রচারে রবিবার কলকাতায় এলেন অমিত শাহ। সকাল ১১টা নাগাদ কলকাতা বিমানবন্দরে নামেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। এরপর তিনি রাজারহাটে চলে যান। সেখানে এনএসজি-র একটি অনুষ্ঠানে অংশ নেন তিনি। রাজারহাটে এনএসজি-র ২৯ স্পেশাল কম্পোজিট গ্রুপের নতুন ভবনের উদ্বোধন করেন তিনি। পুজো করে নারকেল ফাটিয়ে শুভ সূচনা করেন স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী। তবে, এই দিনের সেরা আকর্ষণ অবশ্যই শহিদ মিনারের সভা।

আরও পড়ুন, সেলাই ছিঁড়ে ফের শিশুমৃত্যু এনআরএসে, নিম্নমানের সুতো দিয়ে অস্ত্রোপচারের অভিযোগ


অপরদিকে, অমিত শাহ-র সভার জন্য়  সেজে উঠেছে শহিদ মিনার চত্বর। আজ সিএএ-র সমর্থনে শহিদ মিনারে সভা করবেন তিনি। ইতিমধ্যেই সভাস্থলে চলে গিয়েছেন কর্মীসমর্থকরা। তাঁর সফর ঘিরে উৎসবের মেজাজ বিজেপি দফতরে। বিজেপি কর্মীদের জন্য খিচুড়ি রান্না চলছে জোর কদমে। সকাল থেকেই শহিদ মিনার চত্বরে বিজেপি কর্মীদের জমায়েতের ছবি সামনে এসেছে।এজন্য় স্বাভাবিকভাবেই তাঁর শহর জুড়ে কড়া নিরাপত্তা । রাস্তার গুরুত্বপূর্ণ মোড়গুলিতে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। ট্র্যাফিক ব্যবস্থাতেও একাধিক রদবদল। অমিতের সভায় যোগ দিতে শিয়ালদা, হাওড়া ও সেন্ট্রাল অ্যাভেনিউ-এর বিজেপি অফিস থেকে মিছিল ঢুকবে শহিদ মিনারে। শুধুমাত্র শহিদ মিনার চত্বরেই আড়াই হাজার ফোর্স থাকছে। বিমানবন্দর থেকে বেরিয়ে প্রথমে নিউটউন ও পরে শহিদ মিনারে যাবেন মোদীর সেকেন্ড ইন কমান্ড। গোটা সফরে বিধাননগর ও কলকাতা পুলিশ নিজেদের মধ্যে  যোগাযোগ রেখে রাস্তায় নিরাপত্তার বিষয়টি দেখবেন। 

আরও পড়ুন, শহরে এখনও স্বস্তির আবহাওয়া, শীতের বিদায়ে আবারও বৃষ্টির সম্ভাবনা