রাজ্য়ে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ৪২৩। শনিবার বিকেল পর্যন্ত রাজ্য়ে করোনায় মৃতের সংখ্যা ১৮জন। তবে খুশির খবর, ইতিমধ্য়েই সুস্থ হয়েছেন ১০৫ জন। যদিও কেন্দ্রীয় সরকারের সংখ্যার সঙ্গে মিলছে না এই হিসেব। সেখানে বলা হয়েছে, শনিবার পর্যন্ত বাংলায় করোনা আক্রান্ত ৫৭১। 

কেন্দ্রীয় দলকে সহযোগিতা করছে না রাজ্য়, মুখ্য়সচিবকে ফের কড়়া চিঠি...

শনিবার বিকেলে রাজ্যের স্বাস্থ্য় বুলেটিনে জানানো হয়েছে, পশ্চিমবঙ্গে এখনও পর্যন্ত ৯৮৮০ জনের কোভিড পরীক্ষা হয়েছে। ২৩,৬১৮ জনকে হোম আইসোলেশনে রাখা হয়েছে। যদিও এরমধ্য়েই হোম কোয়ারান্টাইনের সময় পেরিয়েছেন ৩৬,৯৭৫ জন। ২৫ এপ্রিল পর্যন্ত রাজ্য়ে হাসপাতালে আইসোলশনে রাখা হয়েছে ৩৭২৬ জনকে। 

করোনা হাসপাতালে মোবাইল নিষিদ্ধ কেন, হাইকার্টে মামলা অর্জুনের...

অতীতেও রাজ্য় সরকারের বিরুদ্ধে করোনায়  মৃতের সংখ্যা লুকোনোর অভিযোগ করেছেন বিরোধীরা। সম্প্রতি যা নিয়ে বিবৃতি দিয়েছে মুখ্যসচিব। করোনাভাইরাসে আক্রান্ত কোনও রোগী মারা গেলে তাঁর মৃত্যু করোনার কারণেই হয়েছে, নাকি অন্য কোনও কারণে, তা খতিয়ে দেখতে ৩ এপ্রিল বিশেষ কমিটি গড়েছিল রাজ্য সরকার। সেই কমিটিতে এখনও পর্যন্ত ৫৭টি করোনা সংক্রমণে মৃত্যুর ঘটনা পাঠানো হয়েছে বলে জানিয়েছেন তিনি।

কীসের ভিত্তিতে করোনায় মৃতের সংখ্যা, কেন্দ্রীয় দলের একাধিক প্রশ্নের মুখে নবান্ন.

তিনি জানান, ওই কমিটি জানিয়েছে, ১৮ জনের মৃত্যু হয়েছে নিশ্চিত করোনার কারণে। বাকি ৩৯ জনের মৃত্যুর ক্ষেত্রে কোভিড পজিটিভটা ইন্সিডেন্টাল ছিল বলে জানিয়েছেন মুখ্যসচিব। এই ১৮ জনের মৃত্যুর মধ্যে তিনটি জনের মৃত্যু ঘটেছে গত ২৪ ঘণ্টায়।