'গত তিন বছরে পশ্চিমবঙ্গে ১৩০ টিরও বেশি বিজেপি কর্মী নিহত হয়েছেন। পুলিশ ও প্রশাসনের রাজনীতিকরণ এবং অপব্যবহার হয়েছে।   ২০২১ সালের বিধানসভা ভোটে ২০০ টিরও বেশি আসন নিয়ে আমরাই জিতবে', এভাবে গর্জে উঠলেন  কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়।

 

আরও পড়ুন, 'মালদা বিস্ফোরণে বোমার যোগাযোগ নেই', রাজ্যপাল-বিজেপিকে পাল্টা জবাব নবান্নের

 


'সংখ্যাগরিষ্ঠতা নিয়ে নির্বাচনে জয়ী হব'

বৃহস্পতিবার  কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয় দাবি করেছেন যে,' বিজেপি ২০২১ সালের বিধানসভা ভোটে পশ্চিমবঙ্গে ২০০ টিরও বেশি আসনে জয়লাভ করবে। পশ্চিমবঙ্গের আসানসোলের সংসদ আরও জানান যে, রাজ্যে আইন শৃঙ্খলার সম্পূর্ণ ব্যর্থতা পেয়েছে।'পশ্চিমবঙ্গের জনগণ আমাদের সঙ্গে আছেন। মমতা দিদি ক্ষমতায় থাকার জেরেই পুলিশ ও প্রশাসনের রাজনীতিকরণ এবং অপব্যবহার হয়েছে।  আমি বিশ্বাস করি, আমরা বাংলার প্রায় ২০০ আসনের বেশি সংখ্যাগরিষ্ঠতা নিয়ে নির্বাচনে জয়ী হব।'  তিনি আরও বলেন 'যদি বাংলায় বিজেপি সরকার গঠন করা হয়, রাজ্য তার প্রাপ্যটুকু অবশ্যই পাবে। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সংবিধানকে বিশ্বাস করেন না। এটা আমাদের জন্য সহজ পথ। আমরা বাংলায় জিতবই।' পরের বছর পশ্চিমবঙ্গের ২৯৪ টি বিধানসভা কেন্দ্রের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

আরও পড়ুন, ব্রাত্য 'বাঙালি', বাংলার ভোট-যুদ্ধ জয়ে 'অবাঙালি' 'পঞ্চপান্ডব' পাঠাল বিজেপি .

 

'পশ্চিমবঙ্গে ১৩০ টিরও বেশি বিজেপি কর্মী নিহত হয়েছেন' 

উল্লেখ্য, সম্প্রতি বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ জানিয়েছেন, এখন থেকে প্রতি মাসেই অমিত শাহ বাংলায় আসবেন। সেই প্রসঙ্গ তুলেই কেন্দ্রীয় বিজেপি নেতাদের পশ্চিমবঙ্গে যাওয়ার বিষয়ে জানতে চাইলে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বলেন,'আমাদের অভিজ্ঞ নেতারা পশ্চিমবঙ্গে যাবেন। বিজেপি একটি জাতীয় দল। আমরা চাই, কর্মীরা আমাদের কেন্দ্রীয় নেতাদের থেকে অভিজ্ঞতা নিতে পারেন।' 'গত তিন বছরে পশ্চিমবঙ্গে ১৩০ টিরও বেশি বিজেপি কর্মী নিহত হয়েছেন' প্রসঙ্গের আভাষ দিয়ে তিনি আরও বলেন, এভাবেই আমরা পশ্চিমবঙ্গ থেকে তৃণমূল কংগ্রেসের 'গুন্ডা রাজ' কে বের করে দেব।'  

 

 


'কংগ্রেস সরকার নেতাজীর মৃত্যুর সঙ্গে সম্পর্কিত তথ্য গোপন করেছে'
 
প্রধান মোদীকে পাঠানো চিঠিতে  কেবলমাত্র নেতাজি জন্ম দিবসকে জাতীয় ছুটি হিসেবে ঘোষণার দাবি জানিয়েই থেমে থাকেননি মুখ্যমন্ত্রী। পাশাপাশি নেতাজির অন্তর্ধান রহস্যের উন্মোচন করার বিষয়ে কেন্দ্রীয় সরকারকে আরও পদক্ষেপ গ্রহণ করার আবেদন জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এরপরেই নেতাজি সুভাষ চন্দ্র বসু সম্পর্কিত প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে পাঠানো মমতার চিঠির বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেছেন,'নেতাজির সঙ্গে সম্পর্কিত সমস্ত ফাইলই বাতিল করে দেওয়া হয়েছে। কংগ্রেস সরকারগুলি তাঁর মৃত্যুর সঙ্গে সম্পর্কিত তথ্য গোপন করেছে।' এবং জন্ম দিবসকে জাতীয় ছুটি আবদনের কথা নিয়ে তিনি বলেন,'  ছুটির দিন সম্পর্কিত সিদ্ধান্ত গৃহীত হবে বলেই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।  এবং আমরা এটাই চাই। '