ভালোবাসার দিনেই রক্ত ঝরেছিল কাশ্মীরে। পুলওয়ামায় জঙ্গি হামলায় শহিদ হন ৪০ জন সিআরপিএফ জওয়ান। সেই ঘটনার বর্ষপূর্তিতে নিহত জওয়ানদের স্মরণ করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। টুইট করে সমবেদনা জানালেন তাঁদের পরিবারকে।

২০১৯ সালে ১৪ ফ্রেরুয়ারি। ২৫০০ জন জওয়ানকে নিয়ে জম্মু থেকে কাশ্মীরের দিকে যাচ্ছিল সিআরপিএফ-এর কনভয়।  তখন কনভয়টি পুলওয়ামায়। উল্টোদিক থেকে সেনা বহরের দিকে ছুটে আসে একটি গাড়ি। কনভয়ে ঢুকে গাড়িটি ধাক্কা মারে একটি বাসে। প্রায় সঙ্গে সঙ্গেই তীব্র বিস্ফোরণে কেঁপে ওঠে এলাকা। বিস্ফোরণের পর আবার সিআরপিএফ-এর কনভয় লক্ষ্য করে নির্বিচারে গুলি চালাতে শুরু করে জঙ্গিরা। পাল্টা আক্রমণে তাদের সকলেই খতম করেন জওয়ানরা। কিন্তু বিস্ফোরণে ঘটনাস্থলেই প্রাণ হারান ৪০ জন জওয়ান। শহিদ হন হাওড়ার বাউরিয়ায় বাবুল সাঁতরা ও নদিয়ার তেহট্টের সুদীপ বিশ্বাসও।  পুলওয়ামায় গিয়ে তৎকালীন কেন্দ্রীয় প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিং নিজেই শহিদ কফিন কাঁধে তুলে নেন। হামলার দায় স্বীকার করে পাক জঙ্গি গোষ্ঠী জইশ-ই-মহম্মদ। 

পুলওয়ামায় জঙ্গি হামলার ঘটনায় তীব্র ক্ষোভ ছড়িয়ে গোটা দেশে। বিভিন্ন প্রান্তে পাকিস্তানের পতাকা জ্বালিয়ে, সেদেশের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের কুশপুতুল করে বিক্ষোভ দেখান সাধারণ মানুষ। দেখতে দেখতে পেরিয়ে গেল এক বছর। শুক্রবার টুইট করে শহিদদের শ্রদ্ধা জানালেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।