লাফিয়ে বাড়ছে আক্রান্তের সংখ্যা। কদিন আগেই রাজ্য়ের অর্ধেকের বেশি আক্রান্তের সংখ্যা ছিল কলকাতাতেই। যা চিন্তা বাড়িয়েছে কলকাতা পুরসভার। নিজে কলকাতা পুরসভার প্রশাসক পদে বসে ফিরহাদ হাকিম বলেন, সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখছে না বলেই কলকাতায় আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে। পরিসংখ্যান বলছে, গত ২৪ ঘণ্টায় শহরে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৩৭ জন। মারা গিয়েছেন ১০ জন।

রাজ্য় সরকারের করোনা বুলেটিন বলছে, রবিবার সন্ধ্যা পর্যন্ত শুধু কলকাতায় এখনও পর্যন্ত আক্রান্তের সংখ্যা ৯৪৮। আর মৃত ১২৬ জন। এর মধ্যে কোভিড-১৯ আক্রান্ত হয়ে মারা গিয়েছেন ৭৪ জন। বাকি ৫২ জনের শরীরে করোনাভাইরাসের উপস্থিতি ছাড়াও অন্য অসুখ ছিল।

গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে আক্রান্তের সংখ্যা ১৫৩। মারা গেছেন ১৪ জন। এর মধ্যে আবার কলকাতায় ১০ জন। রবিবার সন্ধেয় স্বাস্থ্য ভবনের তরফে প্রকাশিত বুলেটিনে এমনটাই জানা গেছে। ফলে রাজ্যে মোট আক্রান্তের সংখ্যা এই মুহূর্তে ১৯৩৯। আর এই আক্রন্তের মধ্যে বেশির ভাগটাই কলকাতায়।

মহানগরে রবিবার সন্ধ্যা পর্যন্ত মোট আক্রান্ত ৯৪৮ জন, মোট সুস্থ হয়েছেন ২০৮ জন, মোট কোভিড-১৯ আক্রান্তের মৃত্যু ৭৪, মোট কোমর্বিডিটি মৃত্যু ৫২, টোটাল অ্যাক্টিভ রোগী ৬১৪। এদিকে কলকাতার এই করোনা বৃদ্ধি নিয়ে রাজ্য় সরকারেকে চেপে ধরেছেন বিরোধীরা। বিজেপির অভিযোগ,সামাজিক দূরত্ব মানা হচ্ছে না দেখেও ফিরহাদ হাকিম বহু জায়গায় ব্যবস্থা নেননি। বিশেষ করে কলকাতার বাজারে কোনও সামাজিক দূরত্বের বালাই নেই। যার জেরে লকডাউনেও খোদ মহানগরে দ্রুত হারে বেড়েই চলেছে কোভিডে আক্রান্তের সংখ্যা।