সিএএ বিরোধিতা নিয়ে এবার পার্ক সার্কাসের আন্দোলনকারীদের খোঁচা দিতে ছাড়লেন না দিলীপ ঘোষ। বিজেপির রাজ্য় সভাপতি বলেন, দিল্লি থেকে চিদম্বরম এসে পার্ক সার্কাসে যোগ দিচ্ছেন। কদিন পর বৃন্দা কারাতও এসে ওই পার্ক সার্কাসে যোগ দেবেন। ওইসব সার্কাস আমরা অনেক দেখেছি। দেশ থেকে সার্কাস প্রায় উঠে গেছে। এই সার্কাসও উঠে যাবে।

দৃষ্টি ফেরানোর চক্করে খোয়াতে হল চোখ, ছানি অপারেশনে বিপাকে বৃদ্ধা 

নাগরিকত্ব আইনের বিরোধিতায় দিল্লির শাহিনবাগের আদলে কলকাতার পার্ক সার্কাসে চলছে আন্দোলন।  বৃহস্পতিবার  ব্যারাকপুরে মঙ্গল পান্ডে উদ্যোনে এসে আন্দোলনকারীদের একহাত নিলেন বিজেপির রাজ্য় সভাপতি। দিলীপ বাবু বলেন, এখন আর নাগরিকত্ব আইনের বিরোধিতায় দিদি কাউকে পাশে পাচ্ছেন না। কলকাতায় পার্ক সার্কাস আর মুর্শিদাবাদে আন্দোলন চলছে। মুসলিমদের ভুল বুঝিয়ে সিএএ বিরোধিতায় নামানো হয়েছে। দিদির সঙ্গে এই আন্দোলনে সঙ্গী হয়েছে কংগ্রেস-সিপিএম। দিল্লি থেকে বাবুরা এসে আর কোথাও যাচ্ছেন না। সোজা পার্ক সার্কাসে চলে যাচ্ছেন। আগে চিদম্বরম এসে পার্ক সার্কাসে গেছেন। এবার বৃন্দা কারাত  এসেও ওখানেই যাবেন। এতে হয়তো এক মিনিট ওনাদের টিভিতে দেখা যাবে। কারণ ওনাদের অস্তিত্ব সংকট চলছে। আমিও দেখতে চাই পার্ক  সার্কাসের সার্কাস কতদিন চলে।

তৃণমূলে প্রশান্ত কিশোর, কী বললেন পার্থ

এই বলেই অবশ্য় থেমে থাকেননি মেদিনীপুরের সাংসদ। সিএএ প্রতিবাদ নিয়ে জলঙ্গীতে কেন গুলি চলল, সেই প্রশ্ন তুলেছেন তিনি।দিলীপবাবুর কথায়, অতীতে যেখানেই রাজনৈতিক সংঘর্ষ হয়েছে বিজেপির ঘারে দোষ চাপিয়েছে শাসক দল। মুর্শিদাবাদে তো বিজেপি ছিল না। তাহলে সিএএ প্রতিবাদে কেন দুজনকে মরতে হল। আসলে নাগরিকত্ব আইন নিয়ে বিরোধিতায় নেমে সংখ্য়ালঘুদের ভুল বোঝাচ্ছেন মুখ্য়মন্ত্রী। যার ফল ভোগ করতে হচ্ছে নিরীহ পরিবারগুলিকে। 

জাতীয় সঙ্গীত গাওয়ার অপরাধ, সাসপেন্ড হলেন প্যান্টালুনসের ২৫জন কর্মী

সম্প্রতি জেডিইউ থেকে তৃণমূলের পরামর্শদাতা প্রশান্ত কুমারকে বহিষ্কার করেছে দল। যা নিয়ে এদিন মুখ খুলেছেন দিলীপ ঘোষ। বিজেপির  রাজ্য় সভাপতি বলেন, উনি তৃণমূলে জয়েন করবেন, এমনটাই খবর আছে তাঁর কাছে। যদিও প্রশান্ত কিশোরকে খোঁচা দিতে ছাড়েননি রাজ্য় বিজেপির  এই নেতা। দিলীপের মতে, পিকে-র বুদ্ধিতে যে চলেছে, সেই ডুবেছে। এবার টিএমসি-র পালা।