'পশ্চিমবঙ্গে কী হচ্ছে, তা দেশের মানুষের জানা উচিত।' দিল্লিতে গিয়ে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের কাছে রাজ্য সরকারের বিরুদ্ধে অভিযোগের তালিকা জমা দিলেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়। সাংবাদিক সম্মেলনে বললেন, 'পশ্চিমবভঙ্গে গণতন্ত্র বিপন্ন, মানবাধিকার লঙ্ঘিত হচ্ছে। পুলিশের কাছে অভিযোগ করার অনুমতি পর্যন্ত দেওয়া হয় না। আগামী দিনে কীভাবে নির্বাচন হবে, তা নিয়ে চিন্তায় আছি।' 

আরও পড়ুন: প্রয়াত বিধানসভার ডেপুটি স্পিকার সুকুমার হাঁসদা, ক্যানসারে আক্রান্ত হয়ে নিলেন চিরবিদায়

উৎসবের মরশুমে দিল্লি সফরে রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়। বুধবার কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর অমিত শাহের সঙ্গে বৈঠকের কথা টুইট করে জানিয়েছিলেন তিনি নিজেই। বৈঠকে কী আলোচনা হল? সে বিষয়ে মুখ না খুললেও, সাংবাদিক সম্মেলনে রাজ্য সরকারের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দিয়েছেন রাজ্যপাল। জগদীপ ধনখড় বলেন, 'মুর্শিদাবাদের মতো সীমান্তবর্তী জেলায় সুড়ঙ্গ তৈরি করা হয়েছে। জঙ্গিদের গ্রেফতার করেছে এনআইএ। অথচ পুলিশ প্রশাসনের কাছে কোনও তথ্য নেই, এটা খুবই চিন্তার বিষয়।' তাঁর আরও অভিযোগ,' বাংলায় রাজনৈতিক খুন হচ্ছে। কিন্তু পুলিশ কোনও ব্যবস্থা নিচ্ছে না। প্রশাসনিক কর্তারা রাজনৈতিক দলের অনুগত।'

 

দিল্লি থেকে কিন্তু আর কলকাতায় ফিরবেন না। নভেম্বরের শুরুতে দার্জিলিং চলে যাবেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়।  এখনও পর্যন্ত যা খবর, ৩০ নভেম্বর পর্যন্ত সেখানকার রাজভবনে থাকবেন তিনি। ১ নভেম্বর সাংবাদিক বৈঠক করবেন শিলিগুড়িতে। হঠাৎ পাহাড়ে যাচ্ছেন কেন?  রাজ্যপালের সোজাসাপ্টা জবাব, দার্জিলিং-এ একটি রাজভবন রয়েছে। সেখানে তিনি যেতেই পারেন। দার্জিলিং পশ্চিমবঙ্গের অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি জায়গা। স্থানীয় মানুষদের সংস্কৃতি বুঝতে ও অভাব-অভিযোগ জানতেই সেখানে যাচ্ছেন।