Asianet News BanglaAsianet News Bangla

Chingrighata: দুর্ঘটনা নিয়ে মুখ্যমন্ত্রীর ধমক খেয়েই তৎপর, চিংড়িঘাটায় পুলিশ আধিকারিকরা

মুখ্যমন্ত্রীর ধমক খাওয়ার পরই তড়িঘড়ি চিংড়িঘাটা পরিদর্শনে যান বিধাননগরের পুলিশ কমিশনার সুপ্রতিম সরকার, রাজ্য পুলিশের ডিজি মনোজ মালব্য সহ একাধিক আধিকারিক।

Mamata angry on accidents Bidhannagar CP visits chingrighata bmm
Author
Kolkata, First Published Nov 17, 2021, 9:00 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

দুর্ঘটনা (Road Accident) লেগেই থাকে চিংড়িঘাটায় (Chingrighata)। এদিকে এই চিংড়িঘাটা এলাকা নিয়েই যত সমস্যা। ওই এলাকা ঠিক কার তা নিয়ে দীর্ঘদিন ধরেই কলকাতা পুলিশ (Kolkata Police) ও বিধাননগর কমিশনারেটের (Bidhannagar Police Commissionerate) মধ্যে বল ঠেলাঠেলি চলছে। মধ্যমগ্রামের (Madhyamgram) প্রশাসনিক বৈঠকে (Administrative Meeting) গিয়ে এনিয়ে অসন্তোষ প্রকাশ করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee)। এনিয়ে কলকাতা পুলিশ ও বিধাননগর কমিশনারেটকে ধমক দেন তিনি। এদিকে মুখ্যমন্ত্রীর ধমক খাওয়ার পরই তড়িঘড়ি চিংড়িঘাটা পরিদর্শনে যান বিধাননগরের পুলিশ কমিশনার (Commissioner of Bidhannagar City Police) সুপ্রতিম সরকার (Supratim Sarkar), রাজ্য পুলিশের ডিজি মনোজ মালব্য সহ একাধিক আধিকারিক।

আজ মধ্যগ্রামের প্রশাসনিক বৈঠকে চিংড়িঘাটার প্রসঙ্গ আসতেই বিধাননগরের পুলিশ কমিশনার সুপ্রতিম সরকারকে সেখানে ঘটনা দুর্ঘটনা নিয়ে প্রশ্ন করেন মমতা। জানতে চান,"চিংড়িঘাটায় কেন রোজ এত দুর্ঘটনা ঘটছে? কলকাতা পুলিশ বলে ওটা আমার নয়। বিধাননগর বলে ওইটুকু আমার, ওইটুকু কলকাতা পুলিশের। তোমাদের নিজেদের ইগোর লড়াইয়ের জন্য সাধারণ মানুষ কেন ভুগবে? শীঘ্র এই সমস্যা মেটাও।" তিনি সাফ জানান এই বিষয়ে ইতিমধ্যেই ডিজি ও কলকাতার পুলিশ কমিশনারের সঙ্গেও তাঁর কথা হয়েছে। 

Mamata angry on accidents Bidhannagar CP visits chingrighata bmm

আরও পড়ুন- অতিরিক্ত ক্ষমতা দেয়নি কেন্দ্র, পুলিশের সঙ্গে সুসম্পর্ক বজায় রাখার বার্তা বিএসএফের

এরপর মুখ্যমন্ত্রীর হুঁশিয়ারি, আর একটা অ্যাক্সিডেন্টও যেন না হয়। মানুষের জীবন অনেক দামি। বলেন, "পরপর কতগুলো অ্যাক্সিডেন্ট দেখলাম, যেগুলি হওয়ার নয়। সমস্যা কমাতে ওখানে একটা ছোট ফুট ওভারব্রিজ করে দেওয়া হচ্ছে। কিন্তু, সবার আগে বিধাননগর আর কলকাতা পুলিশ বসে নিজেদের সমস্যা মেটাবেন।" মমতা জানান জ্ঞানবন্ত সিং-এর সময়েও এই সমস্যার কথা বলা হয়েছিল।

আরও পড়ুন- ২৫ জন কীভাবে চাকরি পেয়েছে জানে না কমিশন, বেতন বন্ধের নির্দেশ আদালতের

এদিকে মমতার বার্তা দেওয়ার ঘণ্টা খানেকের মধ্যেই দেখা যায়, চিংড়িঘাটায় পরিদর্শনে গিয়েছেন বিধাননগরের পুলিশ কমিশনার সুপ্রতিম সরকার, রাজ্য পুলিশের ডিজি মনোজ মালব্য, কলকাতা পুলিশের যুগ্ম কমিশনার (ট্রাফিক) সন্তোষ পাণ্ডে সহ একাধিক আধিকারিক। বেশ কিছুক্ষণ চিংড়িঘাটা মোড়ে দাঁড়িয়ে আলোচনা করেন তাঁরা। কোথা দিয়ে মানুষ কী ভাবে যাতায়াত করবেন, তা নিয়েই আলোচনা হয় বলে সূত্রের খবর। গোটা বিষয়গুলি খুঁটিয়ে খুঁটিয়ে দেখেন তাঁরা। 

আরও পড়ুন- তারাপীঠে হুড়মুড়িয়ে ভেঙে পড়ল মুখ্যমন্ত্রীর উদ্বোধন করা সৌর উনুন, আহত ৪

Mamata angry on accidents Bidhannagar CP visits chingrighata bmm

গত কয়েকদিনে একের পর এক পথ দুর্ঘটনার সাক্ষী থেকেছে চিংড়িঘাটা। সোমবারই ট্রাকের ধাক্কায় মাত্র ২৬ বছরেই প্রাণ হারান এক যুবক। কসবা থেকে রুবি হয়ে বাইকে করে সেক্টর ফাইভের দিকে যাচ্ছিলেন তিনি। সেই সময়ই চিংড়িঘাটার কাছে নির্মীয়মাণ মেট্রো স্টেশনের নিচ দিয়ে সঙ্কীর্ণ রাস্তাটি দিয়ে একটি ট্রাক আসছিল। আচমকাই ট্রাকটি ওই বাইকে সজোরে ধাক্কা মারে। বাইক চালকের পিছনের আসনে বসেছিলেন সাগর পাল নামের ওই যুবক। ধাক্কার চোটে প্রায় ৫০ মিটার দূরে ছিটকে পড়েন তিনি। পড়ে যাওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই তাঁর মাথা থেকে খুলে যায় হেলমেট। ফুটপাতের কোনায় গিয়ে লাগে তাঁর মাথা। এরপর বিধাননগর মহকুমা হাসপাতালে নিয়ে গেলে তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করা হয়। 

ভাইফোঁটার (Bhai Dooj 2021) দিন সকালে হাইল্যান্ড পার্কের কাছে বাঘাযতীন উড়ালপুল থেকে নামার সময় একটি বেসরকারি বাস সজোরে ধাক্কা মারে স্কুটিতে। রাস্তায় ছিটকে পড়েন চালক। এরপর তাঁর উপর দিয়ে বাস চালিয়ে দেন চালক। খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌঁছয় পূর্ব যাদবপুর ট্রাফিক গার্ডের কর্তব্যরত কর্মীরা। স্কুটি চালককে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে সেখানে চিকিৎসকরা তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করেন। একের পর এক এইরকমই সব মর্মান্তিক পথ দুর্ঘটনা ঘটে চলেছে ওই এলাকায়। আর তা নিয়েই আজ বিধাননগর ও কলকাতা পুলিশকে ধমক দেন মমতা।  

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios