'জীবনের সফলতা-ব্যর্থতা কখনই প্রাপ্ত নম্বর ঠিক করে দেয় না',দেশ তথা রাজ্যের তামাম শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্য বার্তা মোদীর। এদিন দেশের প্রধানমন্ত্রী মোদী। এদিন পশ্চিমবঙ্গের ব্যারাকপুর সেন্ট্রাল মডেল হাইস্কুলের ছাত্রের সঙ্গে ভার্চুয়ালি কথোপকথন করলেন মোদী।

আরও পড়ুন, চতুর্থ দফার আগে করোনার ভয়াবহ সংক্রমণ, একদিনে আক্রান্ত ২৩০০ এরও বেশী 

 

 

এদিন  একেবারেই বন্ধুর মত করে পশ্চিমবঙ্গের ব্যারাকপুর সেন্ট্রাল মডেল হাইস্কুলের ছাত্র শ্রেয়ান রায়ের সঙ্গে কথা বললেন মোদী। 'আমার তরুণ বন্ধু' বলে মোদী টুইটেও তা উল্লেখ করেছেন। পরীক্ষার রেজাল্ট ভীতি কাটিয়ে দেশ তথা রাজ্যের তামাম শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্য দিলেন আলোর খোঁজ দিলেন প্রধানমন্ত্রী। প্রথমে নিজের পরিচয় দিয়ে শ্রেয়ান  জানিয়েছে,  পরীক্ষার   রেজাল্ট যদি ভাল না হয় সেক্ষেত্রে কী হবে এবং এই খারাপ ফলাফলই কি জীবনে ব্যর্থতা ডেকে আনবে। এর পরেই মোদী বলেছেন কখনই নয়, কীকরে এরকম ভাবলে বন্ধু।  জীবনের সফলতা-ব্যর্থতা কখনই প্রাপ্ত নম্বর ঠিক করে দেয় না।' এরপর প্রধানমন্ত্রী তবে প্রশ্নটি গুরুত্বপূর্ণ। এপ্রশ্ন বারবারই উঠে আসে-বারবার উত্তরও দিতে হয় । তাই একবার উত্তর দিলেই এর সমস্যা সমাধান হয় না। আমি মন খুলে বলতে চাই, শিক্ষা ক্ষেত্র এবং পারিবারিক জীবনে চিন্তা করা জায়গা অনেকটাই কমে গিয়েছে। পরীক্ষায় আসা প্রাপ্ত নম্বর তাই কখনই  যোগ্যতার মাফকাঠি নয়, এদিন বলেছেন মোদী। শুধু ভারতই নয়, বিশ্বের অনেক দেশে এমন অনেকেই আছেন যারা পরীক্ষায় ভাল নাম্বার না পেয়েও পৃথিবীর সর্ব শ্রেষ্ঠ মানুষ হয়েছেন। পরীক্ষায় নম্বর কম এলে এমন ভাবে নেওয়ার কোনও কারণ নেই যে, আপনার জীবনে বড়সড় ক্ষতি হয়ে গেল।'

 

আরও পড়ুন, আজ বজ্রবিদ্যুৎ সহ ঝাপিয়ে বৃষ্টি শহরে, ঝোড়ো হাওয়া-প্রবল বর্ষণের সতর্কতা ২ মেদিনীপুরে 

 

এরপরেই মোদী বলেছেন, ভবিষ্যতে অবশ্যই একটা জিনিস থেকে বেঁচে চলতে হবে। প্রধানমন্ত্রী এদিন বলেব, ডেস্টিনেশন ফিবার  এসে যায় অনেক সময়। অর্থাৎ কেউ  কোন  পথে রয়েছে বা কোনও সফল গন্তব্য়ে পৌছেছে কেউ, আর সেটা দেখে নিজের এগিয়ে চলার পথ নির্ণয় করা, এটা ভূল। কিংবা কেউ কোনও ফিল্ডে অসফল। এদিকে সেই পথ কোনও শিক্ষার্থী পছন্দ হওয়া সত্বেও ওই নির্দিষ্ট ব্যক্তির ব্যর্থতাকে নজরে রেখে  সরিয়ে নিল গন্তব্য এটাও তেমন উচিত নয়। অর্থাৎ এক্ষেত্রে মোদী বলেছেন, পরীক্ষার প্রাপ্ত নম্বর যেমন জীবনের সফলতা-ব্যর্থতার মাফকাঠি নয়-ঠিক অন্য কারও গন্তব্য দেখেও প্রভাবিত হওয়া উচিত নয় বলে জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী।