বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জেপি নাড্ডার হামলা নিয়ে নিজেদের সুর আরও চড়া করছে বিজেপিরা রাজ্য নেতত্ব। ঘটনার দিনই এই হামলা প্রসঙ্গে বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতাদের তীব্র কটাক্ষ করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। চাড্ডা, নাড্ডা, ফাড্ডা বলে কটাক্ষ করেছিলেন তৃণমূল নেত্রী। এরপরই বিষয়টি নিয়ে অসন্তোষ প্রকাশ করে ট্য়ুইট করেছিলেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়। ঘটনাটিকে এত সহজ ভাবেও নিচ্ছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক। এই অবস্থায় তৃণমূলের বিরুদ্ধে কড়া হুঁশিয়ারি দিলেন বিজেপি নেতা সায়ন্তন বসু।

আরও পড়ুন-শনিবার আচমকাই সর্বোচ্চ তাপমাত্রা স্বাভাবিকের ৬ ডিগ্রি নীচে, উত্তরবঙ্গে বৃষ্টির পূর্বাভাস

''তৃণমূল যে অপরাধ করেছে, তা নিয়ে নেতাদের ভোগ করতে হবে''। হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেন বিজেপি নেতা সায়ন্তন বসু। কার্যত হুঁশিয়ারি দিয়ে তিনি আরও বলেন, ''তৃণমূল নেতাদের এরপর পশ্চিমবঙ্গের বাইরে বেরোনাটা আরও কঠিন হবে। বাংলায় একটা প্রবাদ আছে, ভাবিয়া করিও কাজ, করিয়া ভাবিও না। যে অপরাধ তৃণমূল নেতারা করেছে তার কিছু ভোগ করতে হবে''।

আরও পড়ুন-মমতাকে উৎখাত করতে নরোত্তমের বিশেষ পদক্ষেপ, বাঙালিকে আহ্বান, সাক্ষাত জয়ার মায়ের সঙ্গে

প্রসঙ্গত, বুধবার দুদিনের রাজ্য সফরে এসেছিলেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জেপি নাড্ডা। সফরের দ্বিতীয় দিন বৃহস্পতিবার তৃণমূল সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের গড়ে সভা করতে গিয়েছিলেন তিনি। সেই সভাস্থলে যাওয়ার পথে শিরাকোলে বিজেপি প্রথম সারির নেতাদের কনভয়ে হামলার ঘটনা ঘটে। ইট-পাথর-বোতল ছুঁড়ে গাড়িতে হামলা চালানো হয়। হামলার জেরে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছিল বিজেপি নেতাদের গাড়ি। সেই ঘটনায় রাজ্যের কাছে রিপোর্ট চেয়ে পাঠিয়েছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমমন্ত্রক। পাশাপাশি, এই ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে তৃণমূলের বিরুদ্ধে সরব হয়েছে বিজেপির রাজ্য নেতৃত্ব। এবার সরাসরি তৃণমূল নেতাদেরৃ হুঁশুয়ারি দিলেন বিজেপি নেতা সায়ন্তন বসু।