Asianet News BanglaAsianet News Bangla

সিবিআই দফতরে হাজির ববিতা, এসএসসি দুর্নীতি মামলায় চাপ বাড়ল কাদের

সিবিআই দফতরে হাজির এবার এসএসসি দুর্নীতি মামলার মামলাকারী ববিতা সরকার।    ইতিমধ্যেই স্কুল সার্ভিস কমিশনের নিয়োগ দুর্নীতিতে রাজ্যের প্রাক্তন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়, বর্তমান শিক্ষাপ্রতিমন্ত্রী পরেশ অধিকারী, বর্তমান শিক্ষামন্ত্রী ব্রাত্য বসুর-সহ একাধিক হেভিওয়েট নেতাদের নাম জড়িয়েছে।  সাম্প্রতিককালে যার দায়ের করা মামলার দরুন এই বিতর্কের সৃষ্টি হয়েছে। আর এবার সেই ববিতা সরকারকেই তলব করেছে সিবিআই। আর সেই সূত্র ধরেই এসএসসি দুর্নীতি মামলায় নথি নিয়ে নিজাম প্যালেসে আইনজীবীর সঙ্গে ববিতা। 

SSC Corruption Case Babita Sarkar appeared at the CBI office RTB
Author
Kolkata, First Published Jun 2, 2022, 3:21 PM IST

সিবিআই দফতরে হাজির এবার এসএসসি দুর্নীতি মামলার মামলাকারী ববিতা সরকার। উল্লেখ্য, সাম্প্রতিককালে গোটা পশ্চিমবঙ্গ জুড়েই এসএসসি দু,র্নীর্তি সংক্রান্ত মামলাটি প্রধান আলোচ্য বিষয় হয়ে উঠেছে। ইতিমধ্যেই স্কুল সার্ভিস কমিশনের নিয়োগ দুর্নীতিতে ইতিমধ্যেই রাজ্যের প্রাক্তন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়, বর্তমান শিক্ষাপ্রতিমন্ত্রী পরেশ অধিকারী, বর্তমান শিক্ষামন্ত্রী ব্রাত্য বসুর-সহ একাধিক হেভিওয়েট নেতাদের নাম জড়িয়েছে। এদিকে প্রাক্তন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় এবং বর্তমান শিক্ষাপ্রতিমন্ত্রী পরেশ অধিকারীকে একাধিকবার তলবও সেরে ফেলেছেন সিবিআই। যদিও সেই তলবের তালিকায় এখনও আসেননি ব্রাত্য বসু। তবে সাম্প্রতিককালে যার দায়ের করা মামলার দরুন এই বিতর্কের সৃষ্টি হয়েছে। আর সেই ববিতা সরকারকেই তলব করেছে সিবিআই। আর সেই সূত্র ধরেই এসএসসি দুর্নীতি মামলায় নথি নিয়ে নিজাম প্যালেসে আইনজীবীর সঙ্গে ববিতা।  

প্রসঙ্গত, এসএসসি দুর্নীতিকাণ্ডে শিরোণামে রাজ্যের শিক্ষামন্ত্রী পরেশ অধিকারী। এসএসসি দুর্নীতির অভিযোগে হাইকোর্টের নির্দেশ সদ্য চাকরি হারিয়েছেন তার কন্যা অঙ্কিতা চৌধুরি। কোচবিহারের ইন্দিরা বালিকা বিদ্যালয়ের শিক্ষিকা ছিলেন মেখলিগঞ্জের বিধায়ক তথা রাজ্যের স্কুল শিক্ষা দফতরের প্রতিমন্ত্রী পরেশ অধিকারীর মেয়ে অঙ্কিতা অধিকারী। তিনি ৪৩ মাস চাকরি করেছেন। সম্প্রতি উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষক নিয়োগে দুর্নীতি মামলায় নাম জড়ায় শিক্ষাদফতর প্রতিমন্ত্রী পরেশ অধিকারীর। অভিযোগ, মেধা তালিকায় না থেকেও মন্ত্রীর মেয়ে চাকরি পেয়ে গিয়েছেন। এনিয়ে ববিতা সরকার নামে এক পরীক্ষার্থী মামলা করেছিলেন। ববিতার দাবি, তাঁর থেকে কম নাম্বার ছিল মন্ত্রীর মেয়ে অঙ্কিতা অধিকারীর। তারপরেও নিয়োগপত্র হাতে পাননি ববিতা। অথচ ২০১৮ সালে মেখলিগঞ্জের একটি স্কুলে চাকরি পেয়ে যান অঙ্কিতা অধিকারী।  সূত্রের খবর, তদন্তকারী আধিকারিকরা পরেশ অধিকারীর কন্য অঙ্কিতা অধিকারীর বিরুদ্ধে আরও তথ্য জোগাড় করতে চেয়েছেন।আর সেই ববিতা সরকারকেই তলব করেছে সিবিআই। আর সেই সূত্র ধরেই এসএসসি দুর্নীতি মামলায় নথি নিয়ে নিজাম প্যালেসে আইনজীবীর সঙ্গে ববিতা। ববিতার বয়ান রেকর্ড করবে সিবিআই। আর তাই স্বাভাবিকভাবেই এসএসসি দুর্নীতি মামলায় চাপ বাড়ল এবার পরেশ-অঙ্কিতাদের।

আরও পড়ুন, কয়লা কেলেঙ্কারির জের, 'বিদেশ যেতে দিচ্ছে না ইডি', আদালতের দ্বারস্থ অভিষেক

শিলিগুড়ির কোর্ট মোড়ের বাসিন্দা ববিতা সরকার ২০১৬ সালে স্কুল শিক্ষক নিয়োগের পরীক্ষায় বসেন।২০১৭ সালের ২৭ নভেম্বর মেধা তালিকা প্রকাশ করা হয়েছিল। সেই তালিকায় অবশ্য ববিতার নাম প্রথম থেকে ২০ তেই ছিল। কিন্তু সেই তালিকা বাতিল করে দেয় এসএসসি। কিছুদিন পরে প্রকাশিত হয় নতুন তালিকা। নতুন তালিকায় ববিতার নাম ছিল ওয়েটিং লিস্টে।আর পুরোনো তালিকায় কোথাও না থাকা অঙ্কিতার নাম সংযোজনের অভিযোগ। তালিকায় একধাপ নীচে নামলেন কীভাবে, নতুন সংযোজনে অঙ্কিতাইবা কে। তা তখনও জানতেন ববিতা। পরে জানতে পেরেই শুরু হয় দৌড় ঝাঁপ। র ্যাঙ্কিয়ের কার্ঢ নিয়ে ধর্ণা মঞ্চ থেকে শুরু করে এসএসসি কর্তৃপক্ষ কোথাও যেতে বাদ রাখেননি ববিতা। এমন কি তথ্য জানার অধিকার আইনেও প্রশ্ন করেছেন তিনি। জানতে চেয়েছেন তাঁর এবং অঙ্কিতার প্রাপ্ত নম্বর কত।ববিতা বিবাহিতা। দুই সন্তানের মা। গত পাঁচ বছর ধরে তাঁদের সামলে নিজেই লড়াই চালিয়ে গিয়েছেন। বিপক্ষে যখন প্রভাবশালী মন্ত্রী, তখন লড়াই যে কঠিন হবে, তা বুঝেছিলেন ববিতাও। কিন্তু হাল ছাড়েননি। 

আরও পড়ুন, 'কেকে-কে হত্যা করা হয়েছে, অপরাধ বোধে গান স্যালুট দিয়েছে সরকার', বিস্ফোরক দিলীপ

আরও পড়ুন, 'কেকে-কে ব্যাক্তি আক্রমণ করতে চায়নি রূপঙ্কর, ইমনদের পাশে দাঁড়ানো উচিত ছিল', মুখ খুললেন নচিকেতা

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios