সব্যসাচী দত্তের বিরুদ্ধে অবশেষে কড়া পদক্ষেপ নিল তৃণমূল কংগ্রেস। অবিলম্বে সব্যসাচীকে বিধাননগরের মেয়রের পদ থেকে ইস্তফার নির্দেশ দিলেন পুরমন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম। সব্যসাচীকে ফোন করে ফিরহাদ হাকিম এই নির্দেশ দেন বলে সূত্রের খবর। যদিও, এই নির্দেশের কথা এখনও স্বীকার করেননি বিধাননগরের মেয়র। 

রবিবার রাতে ফের বিজেপি নেতা মুকুল রায়ের সঙ্গে বৈঠক করেন সব্যসাচী দত্ত। সেই বৈঠকের পরে সব্যসাচীর পাশে বসেই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এবং তৃণমূলের বিরুদ্ধে সরব হন মুকুল রায়। তার কোনও বিরোধিতা করেননি সব্যসাচী। বরং দলের কড়া পদক্ষেপকে কার্যত উড়িয়ে দেন তিনি। 

এর পরে সব্যসাচীর বিরুদ্ধে দলের পদক্ষেপ না করাটাই অস্বাভাবিক ছিল। তবে শুধুমাত্র মেয়র পদ থেকে ইস্তফা দেওয়া নাকি সব্যসাচীর বিরুদ্ধে তৃণমূল এর পরে আরও বড় কোনও শাস্তিমূলক পদক্ষেপ নেয় সেটাই দেখার। কারণ সব্যসাচীকে এখনও বহিষ্কারের মতো সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি। মেয়র পদ থেকে ইস্তফার নির্দেশের পরিপ্রেক্ষিতে সব্যসাচী কী করেন, সেটা দেখেই হয়তো তৃণমূল নেতৃত্ব পরের সিদ্ধান্ত নেবে। তারাও হয়তো চাইছে, এবার নিজে থেকেই দল ছাড়ুন সব্যসাচী। মেয়র পদে ইস্তফা দিলেও তিনি এখনও বিধায়ক থাকছেন।