রাজ্য়ে ফের করোনায় আক্রান্ত দুই  চিকিৎসক। হাসপাতাল সূত্রে খবর, এদের মধ্য়ে একজন হাওড়া জেলা হাসপাতালের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক। অন্যজন দক্ষিণ কলকাতার একটি বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসকের কাজ করেন। জানা গিয়েছে, ইনিও জরুরি বিভাগের দায়িত্বে থাকেন।

হাসপাতাল সূত্রে খবর, হাওড়া জেলা হাসপতালের চিকিৎসককে ভর্তি করা হয়েছে এম আর বাঙুর হাসপাতালে। অন্য়দিকে, দক্ষিণ কলকাতার চিকিৎসককে নিয়ে  যাওয়া হয়েছে বেলেঘাটা আইডি হাসপাতালে। কদিন আগেই করোনায় আক্রান্ত  হয়েছেন হাওড়া জেলা হাসপাতালেরই সুপার। অনুমান, সুপারের সঙ্গে করোনা নিয়ে একাধিক বৈঠক করেছেন ওই চিকিৎসক। সেকারণে সুপারের থেকেই করোনা পজিটিভ ওনার দেহে সংক্রমিত হয়ে থাকতে পারে।

এখানেই শেষ নয়। জানা গিয়েছে, কোভিড১৯ পাওয়া গিয়েছে হাওড়া জেলা হাসপাতালের এক সাফাইকর্মীর দেহেও। বর্তমানে ওই সুপার ও সাফাইকর্মী দুজনেই হাসপতালে ভর্তি। আক্রান্তদের মধ্য়ে একজন এমআর বাঙুর হাসপাতালে ভর্তি রয়েছে, অন্যজনকে রাখা হয়েছে হাওড়ার এক বেসরকারি  হাসপাতালে। 

অপরদিকে দক্ষিণ কলকাতার ওই জরুরি বিভাগের মেডিক্যাল অফিসার গত ১০ তারিখ থেকেই শারীরিক  অসুস্থ বোধ করেন। জানা গিয়েছে, হাসপাতালে কর্তব্য়ের সময় তাঁক কাছে করোনার উপসর্গ নিয়ে এক ব্যক্তি আসেন। করোনার উপসর্গ থাকায় ওই ব্য়ক্তিকে বেলেঘাটা আইডি হাসপাতালে যাওয়ার পরামর্শ দেন চিকিৎসক। তারপর থেকেই তাঁর শরীরে সর্দি, জ্বরের প্রকোপ  শুরু হয়।