সমগ্র বিশ্বে মহামারি আকার ধারণ করছে করোনা ভাইরাস। এর থাবায় প্রতিদিনই মৃত্যুর মিছিলের সংখ্যা বৃদ্ধি পাচ্ছে। সেই সঙ্গে সাধারণ মানুষের মনে বাড়ছে আতঙ্ক, ঝুঁকি ও নিরাপত্তাহীনতা। এই মারণ ভাইরাসের থাবায় মানুষের শারীরিক অবনতিই নয় পড়ে গিয়েছে বিশ্বের অর্থনীতিও। পতন হয়েছে শেয়ার বাজারের। করোনা নিয়ে আতঙ্কিত না হয়ে সচেতনতার পরামর্শ দিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা হু। পাশাপাশি এই ভাইরাস থেকে বাঁচার এমনই কয়েকটি পরামর্শ দিয়েছেন হু-এর বিশেষজ্ঞরা। দেখে নিন সেই পরামর্শগুলি-

একসঙ্গে কোবিড-১৯ এর বিরুদ্ধে লড়াই করতে অবশ্যই মেনে চলুন এই নিয়মগুলি। আর দ্রুত ভারতকে মুক্ত করুন করোনা ভাইরাসের হাত থেকে। এর জন্য আমাদের সকলের একসঙ্গে সচেতন হওয়া প্রয়োজন। সকলকে একত্রিত হয়ে এই ভাইরাসের দ্রুত বৃদ্ধি বন্ধ করা প্রয়োজন। সারা বিশ্বজুড়ে বহু মানুষের প্রাণ কড়েছে এই ভাইরাস। তাই সেই অবস্থা যাতে আমাদের দেশেরও না হয় তার জন্য লড়াই করতে হবে আমাদেরকেই। জেনে নিন করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়তে কী করবেন আর কী করবেন না।

কী করবেন-

প্রতিটি মানুষের থেকে ১ মিটারের দূরত্ব বজায় রাখুন।

হাসপাতাল, শপিং মল, বাজার, রোস্তোরাঁ, পাবলিক ট্রান্সপোর্ট এড়িয়ে চলুন।

ঘর থেকে যাবতীয় কাজ করুন।

মিটিং, কোচিং, ওয়ার্কশপ এড়িয়ে চলুন।

সামাজিক অনুষ্ঠান থাকলেও কম সংখ্যক লোককে আমন্ত্রণ জানান।

যেগুলি করবেন না-

ভীড় বা জনবহুল জায়গায় যাবেন না।

সাংস্কৃতিক বা সামাজিক অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করবেন না।

করমর্দন করে অভিবাদন জানাতে যাবেন না।

অতি প্রয়োজন ছাড়া বিদেশের সফর বাতিল করুন।

 

একইসঙ্গে মাথায় রাখুন এই বিষয়গুলি- যদি পরিচিত কোনও ব্যক্তি বা স্বজনদের মধ্যে জ্বর ও ঠান্ডা লাগার উপসর্গ দেখা যায় তবে হেল্পলাইন নম্বরে যোগাযোগ করুন।

বিশদে জানতে ভারত সরকারের স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রকের কন্ট্রোল রুমে ফোন করুন। 
টোল ফ্রি নম্বর- ১০৭৫ / +৯১-১১-২৩৯৭ ৮০৪৬
ই-মেইল-  এনসিওভি২০১৯এটদ্যারেটজিওভিডটইন, এনসিওভি২০১৯এটদ্যারেটজিমেইলডটকম
রাজ্যের হেল্পলাইন নম্বর (০৩৩) ২৩৪১২৬০০ এবং (১৮০০) ৩১৩৪৪ ৪২২২ এ যোগাযোগ করুন।