শুকনো লঙ্কার উপকারিতা সম্বন্ধে সকলেরই জানা রয়েছে। রান্না থেকে শুরু করে একাধিক কাজে এর ব্যবহার রয়েছে। শুকনো লঙ্কা এতটাই শক্তিশালী যে জীবনে যে কোনও ধরণের কষ্ট কাটিয়ে উঠতে তা ভীষণ কার্যকরী। নজর কাটানো থেকে ব্যবসায় উন্নতি  সবেতেই নতুন উচ্চতায় নিয়ে যেতে পারে এই শুকনো লঙ্কা। বাস্তুমতে  মনে করা হয় শুকনো লঙ্কার এমন অনেক গুনাগুণ রয়েছে,যা জটিল সমস্যা দূর করতে খুবই কার্যকরী।  

আরও পড়ুন-জিওর নয়া চমক, এবার মাত্র ৫ টাকায় মিলবে অতিরিক্ত ২ জিবি ডেটা...


অসুস্থ ব্যক্তিতে সুস্থ করতে

বাস্তুমতে যদি কোনও ব্যক্তি দীর্ঘদিন ধরে অসুস্থ থাকে, বা গুরুতর রোগে দীর্ঘদিন ধরে ভুগতে থাকেন  তবে সেই ব্যক্তির বিছানার নীচে পাঁচটি শুকনো লঙ্কা রেখে দিন। সাদা কাপড়ের মধ্যে পাঁচটি শুকনো লঙ্কা ভাল করে মুড়ে রাখবেন।

নজর দোষ কাটাতে

শুকনো লঙ্কার ব্যবহার করে নজর দোষ কাটানো যায়। কোনও ব্যক্তির নজর দোষ কাটাতে সাতটি শুকনো লঙ্কা দিয়ে ব্যক্তির চারপাশে পাঁচ বার ঘুরিয়ে আগুনের উপর লঙ্কা গুলি ভাল করে পুড়িয়ে নিন। যত লঙ্কা দিয়ে গন্ধ বেরোয় তাহলে ভাববেন নজর লাগেনি। আর যদি লঙ্কার ঝাঁজ বেরোয় তাহলে বুঝবেন নজর লেগেছে। এটিও একটি প্রচলিত ধারণা।

সফলতা পেতে

যদি দীর্ঘদিন ধরে কোনও কাজে সফলতা না পান তাহলে শুকনো লঙ্কার ২১টি বীজ নিয়ে জগের মধ্যে রাখুন। তারপর জগের মধ্যে জল দিয়ে ভর্তি করে নিন। এরপর জল ভরা পাত্রটি মাথার চারপাশে সাত বার ঘুরিয়ে জলটি বাড়ির বাইরে ফেলে দিন। বাস্তু শাস্ত্র মতে এই কাজটি করলেই দেখবেন কাজে সফলতা আসবে।

 

আরও পড়ুন-বয়স বাড়ছে, এবার চাই স্পেশ্যাল কেয়ার...

ধনসম্পত্তি বৃদ্ধিতে

ধনসম্পত্তি বৃদ্ধি করতে কে না চায়। বাস্তুমতে সাতটি শুকনো লঙ্কা নিন। একটি রুমালের মধ্যে বেধে নিয়ে যেখানে টাকা রাখেন সেখানে রাখুন। দেখবেন আপনার টাকার অভাব তাড়াতাড়ি মিটে যাবে। যে কোনও দরিদ্র ব্যক্তিকে আটা ও লাল লঙ্কা দান করলে আপনি উপকৃত হবেন।

নেতিবাচক শক্তি দূর করতে

আপনার বাড়ির প্রধান দরজায় লেবু ও শুকনো লঙ্কা বেধে ঝুলিয়ে দিন। এটি করার ফলে আপনার ঘরে কোনও নেতিবাচক জিনিস ঢুকবে না এবং আপনার বাড়ির উপরও কারওর নজর পড়বে না।

শত্রুকে দমন করতে

এটিও একটি  প্রচলিত টোটকা। শত্রু দমন করতেও ভীষণ উপকারী শুকনো লঙ্কা। রাতের বেলায় মাটির নীচে পাঁচটি শুকনো লঙ্কা রেখে দিন। তারপরে আপনার শত্রুর নামটি মনে মনে নিন। তারপর মাটি দিয়ে গর্তটি পূরণ করে দিন।এটি করলেই আপনার শত্রু দমন হবে।