ব্যস্ততম এই জীবনে এক মুহূর্ত সময় নেই। সকলেই ছুটে চলেছে সময়ের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে। আর সময়ের অভাবের ফলেই সারাদিন চলে খাওয়া-দাওয়ার অনিয়ম। খিদে মেটাতে হাতের কাছে পথ চলতি যা পাওয়া যায় তাই দিয়েই কাজ চালিয়ে নিতে হয়। তাই পেট ভরাতে দোকানের উপরেই ভরসা করে হয় বেশিরভাগ মানুষকেই। ফলে স্বাভাবিকভাবেই প্রতিদিনের নিত্য সঙ্গী গ্যাস, অম্বল, বদহজমের মত সমস্যাগুলি। এই সমস্যাগুলি থেকে মুক্তি পেতে তাই ওষুধের উপর ভরসা না রেখে ঘরোয়া উপায়েই করে ফেলুন এর সমাধান।

গ্যাসের সমস্যা সহজেই সমাধান করতে সাহায্য় করে পটাশিয়াম। তাই এই ধরের সমস্যা দেখা দিলে কলা খেতে পারেন। তাই প্রতিদিনের ব্রেকফাস্টে একটি করে কলা খেলে উপকার পাবেন।

কলার মত ডাবের জলেও রয়েছে পটাশিয়াম ও সোডিয়াম যা অম্বল নাশ করতে সাহায্য করে। দিনে অন্তত একবার ডাবের জল খেলে শরীরও ঠান্ডা থাকবে।

ক্রনিক গ্যাসট্রাইটিসের সমস্যা থাকলে সারারাত জোয়ান ভিজিয়ে রেখে সকালে সেই জল পান করুন। জোয়ান ভেজানো জল খাবার হজম করতে দ্রুত সাহায্য করে।

জোয়ানের মত জিরেও হজমের সমস্যা সমাধান করতে সাহায্য করে। তাই শুকনো খোলায় জিরে টেলে নিয়ে গুঁড়ো করে রেখে দিন। প্রয়োজন মত এক গ্লাস জলে তা মিশিয়ে নিয়ে পান করলে গ্যাস, অম্বলের মত সমস্যা থেকে মুক্তি পাবেন।

ক্যালশিয়াম শরীরের অম্ল শুষে নিতে সাহায্য করে। তাই ঠান্ডা দুধ পান করলে অম্বলের সমস্যার সমাধান করা যায় সহজেই। এমনকি গ্যাসের ব্যাথাও কমিয়ে দেয়।