মুখের যত্ন নিতে গিয়ে হাতের যত্ন অনেকেই নেন না। বহু সাজগোজ তাই মাটি হয়ে যায়। তাই মুখে যতই মেকআপ থাকুক বা পোশাক যতই সুন্দর হোক হাতের মধ্যে যদি কালো ছোপ থাকে তাহলে সাজটাই অসম্পূর্ণ থেকে যায়। বিশেষজ্ঞরা বলছেন বয়সের ছাপ সব থেকে আগে পড়ে হাতেই। তাই হাতের যত্ন এড়িয়ে যাওয়া উচিত নয় কখনোই। সূর্যের তাপ থেকে ট্য়ান পড়া বা আর্দ্রতার অভাব, অথবা মৃত কোষ জমে হাতে বিভিন্ন রকমের ছোপ পড়তে পারে। কিন্তু এই ধরনের সমস্যা সহজেই এড়ানো যায়। জেনে নেয়া যাক এ রকমই কয়েকটি ঘরোয়া উপায়- 

চন্দন - গোলাপ জলের সঙ্গে একটু খানি চন্দন গুঁড়ো মিশিয়ে নিন। এবার এই মিশ্রণ ভালো করে হাতে লাগান। ১০  মিনিট রেখে ধুয়ে ফেলুন। সহজেই দূর হবে সমস্যা।

আপেল- অনেক সময় বাড়িতে আপেল অনেকদিন থেকে অতিরিক্ত পেকে যায়। সেই আপেল আর খাওয়ার অবস্থায় থাকে না। ফেলে না দিয়ে সেই আপেলকে খানিকটা চটকে তাকে হাতে লাগান। হাতের ত্বক মসৃণ ও মোলায়েম হবে ।

মধু- ত্বক যদি অতিরিক্ত শুষ্ক হয়ে যায় তাহলে মধু অবশ্যই লাগান। মধুর সঙ্গে পাতি লেবুর রস মিশিয়ে হাতে লাগিয়ে রাখুন। ১০ মিনিট পরে ধুয়ে ফেলুন। সহজেই হাতের উপর থেকে কালো দাগ চলে যাবে। 

নারকেল তেল- নিয়মিত নারকেল তেল দিয়ে হাতের ১৫ মিনিট ধরে মাসাজ করুন। এর থেকে ভালো ঘরোয়া টোটকা আর কিছু হতে পারে না। 

বেসন আর দই- ত্বক থেকে মৃতকোষ দূর করতে এই টোটকা জুড়ি মেলা ভার। দইয়ের ল্যাকটিক অ্যাসিড ত্বককে নরম রাখে। তাই দইয়ের সঙ্গে বেসন মিশিয়ে সেই মিশ্রণ হাতে মাস্কের মতো লাগিয়ে নিন। ১৫ মিনিট রেখে ধুয়ে ফেলুন হালকা গরম জল দিয়ে। সহজেই ফল পাবেন।

লেবু- লেবুর রসের ভিটামিন সি থাকে এবং প্রাকৃতিক ব্লিচ হিসেবে ব্যবহার করা যায়। তাই নিয়মিত একটি তুলোয় লেবুর রস মাখিয়ে সেটি হাতে ঘষতে থাকুন।