চা বিশ্বের সর্বাধিক উপভোগ্য পানীয়। প্রস্তুত করার প্রক্রিয়া অনুসারে চা-কে পাঁচটি প্রধান শ্রেণীতে ভাগ করা যায়।  প্রায় সবরকম চা-ই ক্যামেলিয়া সিনেনসিস থেকে তৈরি হলেও বিভিন্ন উপায়ে প্রস্তুতের কারণে এক এক ধরনের চা এক এক রকম স্বাদযুক্ত। 

আরও পড়ুন- আলু খেলে কি সত্য়িই বেড়ে যায় ওজন, এই বিষয়ে কি বলছেন পুষ্টিবিদরা

চা মৌসুমী অঞ্চলের পার্বত্য ও উচ্চভূমির ফসল। একপ্রকার চিরহরিৎ বৃক্ষের পাতা শুকিয়ে চা প্রস্তুত করা হয়। চীন দেশেই চায়ের আদি জন্মভূমি। বর্তমানে এটি বিশ্বের সর্বাপেক্ষা উল্লেখযোগ্য পানীয়রূপে গণ্য করা হয়। ১৬৫০ খ্রিষ্টাব্দে চীনে বাণিজ্যিকভাবে চায়ের উৎপাদন শুরু হয়। আর ভারতবর্ষে এর চাষ শুরু হয় ১৮১৮ খ্রিষ্টাব্দে। ১৮৫৫ খ্রিষ্টাব্দে ব্রিটিশরা সিলেটে সর্বপ্রথম চায়ের গাছ খুঁজে পায়। 

আরও পড়ুন- প্লাস্টিক ব্যবহারের আগে জেনে নিন, অজান্তেই পরিবেশের কতটা ক্ষতি করছেন আপনি

শরীরের অবসন্ন ভাব কাটাতে অনেকই চা পান করেন। তবে পানীয়ের মধ্যে জলের পরেই সারা বিশ্বে চা সর্বাধিক জনপ্রিয়। তবে সকাল ঘুম থেকে উঠে খালি পেটে চা খাওয়ার অভ্যাস থাকলে নিজেই চুপিসারে ডেকে আনছেন নিজের মারাত্মক বিপদ। জেনে নিন খালি পেটে চা পান করলে কী ঘটে আমাদের শরীরে-

আরও পড়ুন- বাজার চলতি কেমিক্যাল নয়, পেঁয়াজেই রয়েছে ত্বকের নানান সমস্যার সমাধান

খালি পেটে চা পান করলে বাড়তে থাকে আলসারের ঝুঁকি। একইসঙ্গে হতে পারে গ্যাসট্রিকের সমস্যা।

খালি পেটে চায়ের অভ্যাস শরীরের পুষ্টি উপাদানের সক্রিয়তা কমিয়ে দেয়। ফলে যতই সুষম খাবার খান শরীর পর্যাপ্ত পুষ্টি পায় না।

খালি পেটে চা পান করলে প্রটেস্ট ক্যানসার হওয়ার প্রবণতা বেড়ে যায় কয়েক গুণ।

খালি পেটে চা পান করলে পেট ফাঁপার সমস্যা একই সঙ্গে শরীরে অস্বস্তি তৈরি করে।

খালি পেটে চা পান করলে খিদে কমে যায়, ফলে