বছরে তিন দিন কেন লাল হয়ে যায় ব্রহ্মপুত্রর জল, কামাখ্যা মন্দির সম্পর্কিত এই ঘটনাগুলি আজও এক রহস্য

| May 21 2023, 01:02 PM IST

kamakhya temple
বছরে তিন দিন কেন লাল হয়ে যায় ব্রহ্মপুত্রর জল, কামাখ্যা মন্দির সম্পর্কিত এই ঘটনাগুলি আজও এক রহস্য
Share this Article
  • FB
  • TW
  • Linkdin
  • Email

সংক্ষিপ্ত

ব্রহ্মপুত্র নদের তীরে অবস্থিত হওয়ায় অসম শহরের সৌন্দর্য বৃদ্ধি পায়। এর সঙ্গে এই শহরটি ধর্মীয় কর্মকান্ডের সঙ্গেও জড়িত। কারণ অসমের গুয়াহাটিতে ব্রহ্মপুত্র নদের তীরে নীলাচল পর্বতে কামাখ্যা দেবীর বিখ্যাত মন্দিরও রয়েছে।

 

পাহাড়ে অবস্থিত একটি সুন্দর শহর অসম, বলতে গেলে একটি ছোট শহর। তবে এখানে সব সময় পর্যটকদের ভিড় লেগেই থাকে। ব্রহ্মপুত্র নদ অসম শহরের সৌন্দর্য বৃদ্ধি এবং পর্যটকদের আকর্ষণের প্রধান কেন্দ্রে পরিণত হওয়ার প্রধান কারণ। ব্রহ্মপুত্র নদের তীরে অবস্থিত হওয়ায় অসম শহরের সৌন্দর্য বৃদ্ধি পায়। এর সঙ্গে এই শহরটি ধর্মীয় কর্মকান্ডের সঙ্গেও জড়িত। কারণ অসমের গুয়াহাটিতে ব্রহ্মপুত্র নদের তীরে নীলাচল পর্বতে কামাখ্যা দেবীর বিখ্যাত মন্দিরও রয়েছে।

কামাখ্যা মন্দির এবং ব্রহ্মপুত্র নদ রহস্যের সঙ্গে সম্পর্কিত-

কামাখ্যা মন্দির ও ব্রহ্মপুত্র নদ বরাবরই মানুষের বিশ্বাস ও আকর্ষণের কেন্দ্রবিন্দু। তবে একই সঙ্গে এটি অলৌকিক এবং রহস্যে পরিপূর্ণ। মনে করা হয়, ঋতুস্রাবের সময় দেবীর রক্ত প্রবাহিত হওয়ার কারণে ব্রহ্মপুত্র নদের জলও লাল হয়ে যায়। এটা শুনতে আপনার অদ্ভুত লাগতে পারে। তবে এর সঙ্গে বিশেষ ধর্মীয় বিশ্বাস সংযুক্ত।

কামাখ্যা মন্দিরে ইয়োনি পূজা করা হয়-

কামাখ্যা দেবীর মন্দিরকে ভারতে অবস্থিত ৫১টি শক্তিপীঠের মধ্যে একটি বলে মনে করা হয়। বিশ্বাস অনুসারে, এখানে দেবী সতীর যোনি অংশ পতিত হয়েছিল। তাই কামাখ্যা মন্দিরে দেবীর যোনি পূজা করা হয়। এখানে দেবীর কোনও মূর্তি নেই। যোনির অংশ হওয়ার কারণে, দেবী রজস্বলা (ঋতুস্রাব)ও এখানে হয়। এটিই একমাত্র মন্দির যেখানে দেবী কামাখ্যা বছরে একবার মাসিক হয়। দেবী যখন ঋতুচক্রে থাকেন, তখন মন্দিরও তিনদিন বন্ধ থাকে এবং দেবীর দর্শনও নিষিদ্ধ।

 

ব্রহ্মপুত্র নদ লাল হয়ে যায়-

প্রতি বছর জুন মাসে ব্রহ্মপুত্র নদের জল তিন দিন রক্তের মতো লাল হয়ে যায়। মনে করা হয়, এই সময়ে কামাখ্যা দেবী মাসিক চক্রে বাস করেন। রাজস্বলার সময়, দেবী কামাখ্যার প্রবাহিত রক্তে সমগ্র ব্রহ্মপুত্র নদর জল লাল হয়ে যায়।

আরও পড়ুন- হাত থেকে এই জিনিসগুলি পড়ে যাওয়া খুবই অশুভ, আর্থিক সঙ্কটের ইঙ্গিত দেয় এগুলি

আরও পড়ুন-  আয় করলেও হাতে টাকা থাকে না, এই ৫ নিয়ম মানলে ঘরে টাকার বৃষ্টি হতে পারে

আরও পড়ুন- ঘরে বাস্তুমতে শঙ্খ রাখলে পাবেন এই উপকারিতাগুলো, এক্ষেত্রে পাবেন অলৌকিক ফল

ভক্তদের প্রসাদ হিসেবে দেওয়া হয় লাল কাপড়-

কামাখ্যা দেবীর মন্দিরে শুধু পূজার নিয়মই নয় অন্যান্য মন্দিরের থেকে আলাদা। বরং এখানে ভক্তদের প্রসাদও দেওয়া হয় ভিন্নভাবে। এখানে প্রসাদ হিসেবে ভক্তদের লাল রঙের কাপড় দেওয়া হয়। এই লাল কাপড় সম্পর্কে বলা হয় যে, যখন দেবীর ঋতুচক্র তিন দিন থাকে, তখন মন্দিরে সাদা রঙের কাপড় বিছিয়ে তিন দিন মন্দির বন্ধ থাকে। তিন দিন পর মন্দিরের দরজা খুললে দেবীর রক্তে সাদা কাপড় লাল হয়ে যায়। এই কাপড়টিকে অম্বুবাচী কাপড় বলা হয় এবং ভক্তদের প্রসাদ হিসাবে দেওয়া হয়।