ইতিহাসের ইডেনে আরও এক ঐতিহাসিক মুহূর্ত ঘটার অপেক্ষা আর মাত্র কয়েক ঘণ্টা। কিছু ঘণ্টা পরই ইডেনের সবুজ ঘাস ও উইকেটে গড়াবে পিঙ্ক বল। যা ভারতীয় ক্রিকেট মহলে টেস্ট ম্যাচে এই প্রথম। কতটা তৈরি ইডেন? শেষ পর্যন্ত কারা আসছেন? কি হতে চলেছে ইডেনে? কোন তারকা ২২ তারিখ হচ্ছেন এই ম্যাচের কেন্দ্র বিন্দু? সেই প্রশ্ন কিন্তু থেকেই যাচ্ছে। তবে সেই প্রশ্নের অবশেষে উত্তর পাওয়া গিয়েছে মঙ্গলবার। ইডেনে ম্যাচ দেখতে হাজির থাকছেন একাধিক তারকা। একই সঙ্গে অনুষ্ঠানের সূচিও বেশ বড়। তবে একই সঙ্গে রাজনৈতিক জগতের তিন বড় মাথা আসার কথা থাকলেও, এরই মাঝে তৈরি হয়ে গিয়েছে জল্পনা। মাঠে খেলার প্রথম দিনেই উপস্থিত থাকার কথা ছিল বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সহ বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও কেন্দ্রীয় মন্ত্রী অমিত শাহের। তবে মমতা, হাসিনা ও অমিত শাহের এক সঙ্গে ইডেন টেস্ট দেখা হবে না বলেই মঙ্গলবার খবর বিশেষ সূত্রে। একই মঞ্চে এই তিন জনকে দেখা যাওয়ার কথা থাকলেও সেই নিয়ে এখনও পর্যন্ত সংশয় রয়েই যাচ্ছে।

আরও পড়ুন, ৭২ ঘণ্টা আগেও পিঙ্ক বল উত্তেজনায় 'বিরাট' আক্ষেপ টিকিট, ফিট সার্টিফিকেট পেল ইডেন

মঙ্গলবার বিজেপি রাজ্য দফতরের বিশেষ সূত্রে খবর, আগামী ২২ নভেম্বর প্রথম টেস্টে আসার কথা ছিল কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের। তবে একটি বিশেষ কাজ পড়ে যাওয়া প্রথম দিন আসবেন না তিনি। তবে সিএবির আমন্ত্রণের কারণে ২৩ নভেম্বর কলকাতায় ইডেন ম্যাচে আসবেন তিনি। অন্যদিকে, প্রথম দিন ২২ নভেম্বর ভারত-বাংলাদেশ ঐতিহাসিক টেস্ট ম্যাচের শুভ সূচনা করতে মাঠে হাজির থাকবেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আর সেখানেই এবার এক মঞ্চে একই দিনে বসে খেলা দেখা হবে না তিন জনের। তবে কি প্রতিপক্ষ দলের নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে এড়াতে এমন সিদ্ধান্ত নিলেন অমিত শাহ, প্রশ্ন তুলতে শুরু করে দিয়েছে রাজনৈতিক মহলের এক অংশ।

অন্যদিকে, ইডেনে হাজির থাকতে চলেছে প্রথম ভারত ও বাংলাদেশে টেস্ট ম্যাচের সকল দলের প্রাক্তন ক্রিকেটাররা। শুধুমাত্র ভারতীয় দলের প্রাক্তন সদস্য জাহির খান আসতে পারবেন না শুক্রবার। মাঠে হাজির থাকবেন সচিন, সৌরভ, লক্ষ্মণ, কুম্বলে থেকে শুরু করে দ্রাবিড়াও। এই পাঁচ জনকেই নিয়ে হবে ফ্যাব ফাউভের টক শো। একই সঙ্গে এদিন সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে থাকছেন ভারতীয় টেনিস তারকা সানিয়া মির্জা, ব্যাডমিন্টন তারকা পিভি সিন্ধু, বিশ্বচ্যাম্পিয়ন দাবাড়ু বিশ্বনাথান আনন্দ সহ অন্যান্যরা।

 

 

অন্যদিকে, এই তারকাদের মাঝেই গানের অনুষ্ঠান হওয়ার কথাও আছে ইডেনে। অরিজিৎ সিং সহ বাংলাদেশের গায়িকা রুনা লায়েলাও গানের অনুষ্ঠান করবেন বলে খবর সিএবি সূত্রে। পাশাপাশি ২০০ জনেরও বেশি পড়ুয়া অংশ নেবেন একটি নাচে। যেই অনুষ্ঠান গুলো হতে চলেছে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উপস্থিতিতেই। ম্যাচের প্রথম দিনে খেলা শেষের পড়েই এই অনুষ্ঠান গুলো করা হবে বলে জানানো হয় সিএবি সূত্রে।