বিশ্বকাপের মাঝেই ফের অসুস্থ, হার্টের সমস্যা নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি পেলে

| Nov 30 2022, 10:50 PM IST

Pele

সংক্ষিপ্ত

চলছে কাতার বিশ্বকাপ, নক-আউটে পৌঁছে গিয়েছে ব্রাজিল। এরই মধ্যে অসুস্থ হয়ে পড়লেন কিংবদন্তি পেলে। তাঁকে ভর্তি করা হয়েছে হাসপাতালে।

ফের অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হলেন ব্রাজিলের কিংবদন্তি ফুটবলার পেলে। তাঁকে সাও পাওলোর একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। হঠাৎই তাঁর শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। তাঁর সারা শরীর ফুলে গিয়েছে। হার্টেরও সমস্যা আছে। সেই কারণেই তাঁকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। ৮২ বছর বয়সি এই প্রাক্তন ফুটবলারকে দেখছেন বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা। চিকিৎসকরা তাঁকে সুস্থ করে তোলার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন। তবে হাসপাতাল সূত্রে খবর, পেলের শারীরিক অবস্থা খুব একটা ভাল নয়। তাঁর শরীরে নানা ধরনের সমস্যা আছে। পেলের মেয়ে কেলি ন্যাসিমেন্টো সোশ্যাল মিডিয়া পোস্টে জানিয়েছেন, 'আমার বাবার স্বাস্থ্য নিয়ে সংবাদমাধ্যমে অনেক খবর দেখছি। উনি হাসপাতালে আছেন। সেখানেই তাঁর চিকিৎসা চলছে। তাঁর স্বাস্থ্যের নতুন করে কোনও অবনতি হয়নি। আশঙ্কাজনক কোনও পরিস্থিতিও তৈরি হয়নি। আমি নববর্ষ পর্যন্ত বাবার সঙ্গেই থাকছি। প্রতিশ্রুতি দিচ্ছি, তাঁর কয়েকটি ছবি পোস্ট করব।'

পেলে ক্যান্সারে আক্রান্ত। তাঁর কেমোথেরাপি চলছে। চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, গত কয়েক মাস ধরে কেমোথেরাপি করে খুব একটা লাভ হচ্ছে না। পেলের শরীরের বিভিন্ন অঙ্গ-প্রত্যঙ্গ ধীরে ধীরে বিকল হয়ে যাচ্ছে। সেই কারণেই তাঁর শারীরিক অবস্থা নিয়ে উদ্বেগ তৈরি হয়েছে।

Subscribe to get breaking news alerts

গত বছরের সেপ্টেম্বের পেলের কোলন টিউমারের অস্ত্রোপচার সফল হয়। তারপর থেকে মাঝেমধ্যেই হাসপাতালে ভর্তি হতে হচ্ছে পেলেকে। এ বছরের জানুয়ারিতে ক্যান্সারের চিকিৎসার জন্য তাঁকে ২ দিন হাসপাতালে থাকতে হয়। ফের অসুস্থ হয়ে পড়লেন তিনি।

পেলের স্ত্রী মার্সিয়া আওকি জানিয়েছেন, হঠাৎ সারা শরীর ফুলে যাচ্ছে দেখে তিনি উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েন। সেই কারণেই পেলেকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেন। চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, পেলের শরীরে নানা সমস্যা রয়েছে। তাঁর হৃদযন্ত্রও ধীরে ধীরে বিকল হয়ে যাচ্ছে। সেই কারণে উদ্বেগ বাড়ছে।

পেলের নানা শারীরিক পরীক্ষা করা হচ্ছে। তাঁর এখন ঠিক কী ধরনের সমস্যা হচ্ছে, সেটা বোঝার চেষ্টা করছেন চিকিৎসকরা। গত কয়েকদিন ধরেই পেলের মানসিক স্বাস্থ্যও খুব একটা ভাল নেই। তাঁকে যখন হাসপাতালে আনা হয়, তখনও তিনি মানসিকভাবে সম্পূর্ণ সুস্থ ছিলেন না। তিনি নিজে কোনও খাবার খেতে পারছেন না। তাঁকে জোর করে খাওয়াতে হচ্ছে। হাসপাতালে তাঁর স্ত্রী, মেয়ে এবং পরিবারের অন্যরা আছেন। তাঁকে কবে হাসপাতাল থেকে ছাড়া হবে, সে বিষয়ে এখনও কিছু জানা যায়নি।

আরও পড়ুন-

প্রথম একাদশ থেকে বাদ পড়তে পারেন টমাস মুলার, গ্রুপের শেষ ম্যাচে সতর্ক জার্মানি

কাতারের মাঠে ইতিহাস গড়ল ফিফা, জার্মানি-কোস্টা রিকার ম্যাচে প্রথম মহিলা রেফারি স্টেফানি ফ্রাপা

ছিটকে গেল ইরান, নক-আউটে ইংল্যান্ড, আমেরিকা, নেদারল্যান্ডস, সেনেগাল

 
Read more Articles on