নিউজিল্যান্ডকে আবারও মাত দিলো ভারত। পঞ্চম টি টোয়েন্টি ম্যাচেও ছবিটা বদলানো না। পঞ্চম এবং শেষ ম্যাচেও ভারত ৭ রানে হারালো কিউয়িদের। ভারতের ১৬৩ রান তাড়া করতে গিয়ে ১৫৬ রানেই শেষ হয় কিউয়িদের ইনিংস। টি টোয়েন্টি সিরিজ থেকে ভরপুর আত্মবিশ্বাস সংগ্রহ করে এবার ওয়ান ডে সিরিজে নামতে চলেছে ভারত। 

চলতি সিরিজে দুর্দান্ত ফর্মে ছিলেন কে এল রাহুল। ব্যাট হাতে ধারাবাহিক ভাবে রান করার পাশাপাশি গ্লাভস হাতে উইকেটের পেছনেও সফল। ব্যাট হাতে ৫ ম্যাচে ২২৪ রান করেন রাহুল। এই সিরিজের সর্বোচ্চ রানসংগ্রাহক কে এল রাহুল। এছাড়া চতুর্থ ম্যাচে এবং তৃতীয় ম্যাচে সুপার ওভারে রান তাড়া করার ব্যাপারেও গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা পালন করেন রাহুল। 

শেষ ম্যাচে বিরাট কোহলি নিজে মাঠে নামেননি। তার বদলে ম্যাচ খেলার সুযোগ করে দেন সঞ্জু স্যামসন কে। যদিও সেই সুযোগ কাজে লাগিয়ে ভালো কিছু করতে পারেননি স্যামসন। বিরাটের অনুপস্থিতিতে অধিনায়কত্বর ভার পরে রোহিত শর্মার ওপর। কিন্তু প্রথম ইনিংসে ভারতের ব্যাটিংয়ের সময় ব্যাক্তিগত ৬০ রানের মাথায় চোট পেয়ে মাঠ ছাড়তে বাধ্য হন রোহিত। তারপর আর ফিরতে পারেননি তিনি। তার বদলে অধিনায়কত্বের ব্যাটন দেওয়া হয় কে এল রাহুলকে। সেই পরীক্ষাতেও ভালো মতন উতরে গেছেন রাহুল।

এর পরেই ওয়ান ডে সিরিজ খেলতে নামবে ভারত। সেই সিরিজেও ভালো কিছু করে দেখানোর ব্যাপারে আত্মবিশ্বাসী রাহুল। দলকে নেতৃত্ব দিতে পেরে খুশি রাহুল। এটি তার জীবনের দ্বিতীয় বড় স্বপ্ন বলে জানিয়েছেন তিনি। প্রথমটি অবশ্যই দেশের হয়ে খেলা। রাহুল আরো জানিয়েছেন রোহিত শর্মার চোট নিয়ে উদ্বিগ্ন তারা সকলে। আশা করছেন যে গুরুতর কোনও সমস্যা হবে না রোহিতের। রোহিত শর্মার মতো খেলোয়াড়রা অনেকের কাছে অনুপ্রেরণা বলে জানিয়েছেন রোহিত। তিনি নিজেও বিরাট এবং রোহিত কে দেখে অনুপ্রাণিত হন বলে জানিয়েছেন রাহুল।