মারাদোনার দেশের খেলোয়াড়। নামও দিয়েগো। কিন্তু ফুটবল নয়, টেনিসের কোর্টে দেশের নাম উজ্জ্বল করতে এসেছিলেন। ইউএস ওপেনের শেষ আট পর্যন্ত পৌছালেন, কিন্তু শেষ চারে আর যাওয়া হল না আর্জেন্তিনার দিয়েগোর। কারণ কোয়ার্টার ফাইনালে তাঁর সামনে যে ছিলেন বিশ্ব টেনিসের অন্যতম লেজেন্ড রাফায়েল নাদাল। মারাদোনার দেশের প্রতিপক্ষকে স্ট্রেট সেটে উড়িয়ে দিলেন রাফা। ম্যাচের ফল ৬-৪,৭-৫,৬-২। এই নিয়ে অষ্টমবার ইউএস ওপেনের সেমিফাইনালে পৌছালেন স্পেনের তারকা। 

২০১০, ২০১৩ ও ২০১৭ সালে ইউএস ওপেন চ্যাম্পিয়ন হয়েছিলেন রাফা। এবার তাঁর সামনে চতুর্থবার যুক্তরাষ্ট্র ওপেন চ্যাম্পিয়ন হওয়ার সুযোগ। রাফায়েল নাদালের সামনে আর বড় প্রতিপক্ষ কেউ নেই। চোটের জন্য ছিটকে গেছেন জোকোভিচ। রজারও বাইরে। তাই রাফার কাছে সুবর্ণ সুযোগ। কিন্তু রাফা এসব নিয়ে এখন থেকেই ভাবছেন না। বরং ম্যাচ বাই ম্যাচ এগোতে চাইছেন তিনি। সেমিফাইনালে ইতালির বেরেত্তিন রাফার প্রতিপক্ষ। পাশাপাশি নিউ ইয়র্কের আবহাওয়াও ভাবাচ্ছে নাদালকে। শেষ আটের ম্যাচেও গরমে নাজেহাল হয়ে পরেছিলেন রাফা।

জোকোভিচ চোটের জন্য ছিটকে যাওয়ার পর সবার আশা ছিল নাদাল ফেডেরার ফাইনাল দেখার। কিন্তু রজারও ছিটকে যাওয়ার পর পুরষ বিভাগে তারকাদের সম্মান নাদালের হাতে। তিনি কি পারবেন শেষ হাসি হেসে ফ্ল্যাশিং মিডোয় ট্রফি জিতে নিতে। কাজটা সহজ নয়, বিশেষত এবারের ইউএস ওপেনে তারকাদের ভাগ্য যে খাতে বইছে তাতে টেনিস মহলের আশঙ্কা কাটছে না।