কোহলির কথা মতন টেস্ট সেন্টারের পক্ষে এবার দাঁড়ালেন ভারতের প্রাক্তন পেসার জাহির খান। ভারতীয় বোলিং লাইন আপে এক সময়ে দারুণ ভূমিকা পালন করেছিলেন এই পেসার। ২০১১ সালে বিশ্বকাপ জয়ী দলের সদস্যও তিনি। তবে টেস্ট ক্রিকেটের মাহাত্ব যে দিনে দিনে কমছে সেই কথা এখনও বিশ্বাস করেন জাহির। আর সেই কারণেই এবার টেস্ট সেন্টার প্রসঙ্গে বিরাটের সঙ্গে একমত জাহিরের। তবে মাত্র ৫টি টেস্ট সেন্টার নয়। পুরো দেশে একাধিক টেস্ট সেন্টার করার কথা বললেন জাহির খান।

আরও পড়ুন, শাস্তির পরোয়া নেই, নিরাপত্তা বলয় টপকে মাঠে ঢুকলেন ‘বিরাট’ ভক্ত

এই মুহূর্তে আবুধাবিতে টি১০ ক্রিকেট খেলতে ব্যস্ত প্রাক্তন এই ভারতীয় পেসার। আর সেখান থেকেই টেস্ট সেন্টার প্রসঙ্গে জাহির বলেন, 'টেস্ট সেন্টার একটা কার্যকরি ভূমিকা নিতে পারে। সেটা ঠিক। তবে পুরো দেশে মাত্র পাঁচটি টেস্ট সেন্টার সেটা ঠিক নয়। এত কম টেস্ট সেন্টার হওয়া উচিত না। টেস্ট সেন্টার হওয়া উচিত সেটা আমিও মানি, তবে এত বড় দেশে আরও কিছু টেস্ট সেন্টার হতেই পারে।' টেস্ট ম্যাচের উন্মাদনা ভারতে একবারে শেষ না হলেও কিছুটা দর্শকদের কাছে কমেছে গুরুত্ব। এমনকি মানুষের সময় অনুসারে টেস্ট লম্বা সময়ের এই ফরম্যাটকে এড়িয়ে যাচ্ছেন অনেকেই।

আরও পড়ুন, মেজাজেই কাটাছেন অবসর জীবন, যুবির ফোকাস এখন কোন দিকে

টেস্ট ক্রিকেটকে ফের একবার শীর্ষে  নিয়ে যেতে এই প্রথম ভারতের মাটিতে গোলাপি বলের টেস্ট খেলা হবে ২২ নভেম্বর থেকে। নতুন করে এই ফরম্যাটের জনপ্রিয়তা বাড়াতে প্রচেষ্টা করছেন বিসিসিআই সভাপতি সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়। আর সেই ভারতীয় দলের অধিনায়ক দাদার নামে এই বিষয় নিয়ে প্রসংশাও করলেন জাহির। জ্যাক মহারাজকে নিয়ে বলেন, 'ভারতীয় দলের অধিনায়ক হিসাবে অনবদ্য ছিলেন সৌরভ। এখন সৌরভ বোর্ড সভাপতি। দাদার থেকে আমাদের অনেক চাহিদা রয়েছে। গোলাপি বলের টেস্ট নতুন করে একটা উৎসাহ এনে দেবে মানুষের মধ্যে। আগামী দিনেও দাদা আরও ভালো কাজ করবে বলে আমার ধারণা। টেস্ট ক্রিকেট নিজের অস্তিত্ব হারায়নি। তবে আগামী দিনে আরও বেশি জনপ্রিয় করে তুলতে হবে টেস্ট ম্যাচকে।'