মেক্সিকোয়  মাদক ব্যবসার জাল সুদূর প্রসারিত। যার সন্ধান পেতে হিমশিম খেতে হয় পুলিশ প্রশাসনকেই। সেই দেশ থেকেই আমেরিকায় চোরা পথে হত মাদক চালান। খোঁজ মিলল সীমান্ত এলাকায় এক গোপন টালেনের।

পৃথিবীর ইতিহাসে এই টানেলই এখনও পর্যন্ত সবচেয়ে দীর্ঘতম বলে দাবি করা হচ্ছে। যার দৈর্ঘ্য প্রায় ৪,৩০৯ ফুট। মিটারের হিসাবে ১,৩১৩ মিটার। এই গোপন টালেনে পাতা রয়েছে রেললাইন। নিকাশী ও বায়ু চলাচলের ব্যবস্থা থাকার পাশাপাশি টানেলটিতে হাই ভোল্টেজ বৈদ্যুতিক কেবলও রয়েছে।

আরও পড়ুন: নাগরিকত্ব আইনের বিরোধিতা, মুম্বইবাগে বিক্ষোভে যোগ দেওয়ার আগেই ফের গ্রেফতার কাফিল খান

মেক্সিকোর তিজুয়ানা শহর থেকে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ার সান ডিয়াগো পর্যন্ত বিস্তৃত রয়েছে এই টানেল। 

গোপান টানেলের সন্ধান মিললেও এখনও পর্যন্ত এখান থেকে কোনোও মাদক উদ্ধার হয়নি। কাউকে গ্রেফতারও করা হয়নি। এই টানেল মাদক পাচারের জন্য ব্যবহার করা হত, এমন সন্দেহের কারণ কী, সেবিষয়ে পুলিশের পক্ষ থেকে কিছু জানান হয়নি। 

আরও পড়ুন: চাঁদে হানিমুনে যাওয়ার জন্য জীবনসঙ্গী খুঁজছেন, পাত্রী পাচ্ছেন না ধনকুবের পাত্র

তবে এই এলাকায় মেক্সিকোর কুখ্যাত মাদক পাচারকারী গ্যাঙ সিননালোরা কার্টেলের অধিপত্য রয়েছে বলে দাবি মার্কিন সরকারে। বর্তমানে গ্যাঙের নেতা ইল ছাপ্পো গুয়াজমান মার্কিন জেলে বন্দি রয়েছে। 

গত অগস্টে এই টানেলের সন্ধান মেলে। টানেলটির গভীরতা ৭০ ফুট। তবে কবে এটি নির্মিত হয়েছিল তা সম্পর্কে এখনও কিছু জানতে পারেননি মার্কিন আধিকারিকরা।